নারায়ণগঞ্জে মৃত্যু, শাহজাদপুরে গোপনে দাফনের চেষ্টা

0
36

নারায়ণগঞ্জে মারা যাওয়া আব্দুর রহিম (৫০) নামে এক পোশাক শ্রমিকের লাশ এনে গভীর রাতে নিজ গ্রামে দাফনের চেষ্টা করেন তার স্বজনরা। বিষয়টি স্থানীয়রা টের পেয়ে দাফনে বাধা দেন। খবর পেয়ে উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ ও স্বাস্থ্য বিভাগের লোকজন এসে রাতেই লাশটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে নিয়ে যায়।

শনিবার (১১ এপ্রিল) দিবাগত রাতে সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরের কায়েমপুর ইউনিয়নে বিয়াঙ্গারু গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নমুনা সংগ্রহের জন্য মৃত ব্যক্তি ও তার স্ত্রীসহ ৪ স্বজনকে নিয়ে গেছে স্বাস্থ্য বিভাগের লোকজন। আজ রোববার (১২ এপ্রিল) দুপুরে এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত লাশ দাফন বা নমুনা সংগ্রহ সম্পন্ন হয়নি।

শাহজাদপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আমিনুল ইসলাম খান বলেন, লাশ ও স্বজনদের আপাতত স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালেই রাখা হয়েছে। স্বজনরা ওই ব্যক্তির ডেথ সার্টিফিকেট দেখিয়েছেন। তাতে স্পষ্ট লেখা আছে নারায়ণগঞ্জ সদর হাসপাতালে আনার আগেই ‘ব্রডডেথ’ বা বাড়িতে মারা মারা গেছে। শনিবার দুপুর আব্দুর রহিমকে নারায়ণগঞ্জ হাসপাতালে নেওয়া আগেই মারা যান। নারায়ণগঞ্জ পুলিশের চোখে ফাঁকি দিয়ে এবং বঙ্গবন্ধু সেতু পার হয়ে কীভাবে গ্রামে তারা লাশ নিয়ে আসলো তা ভেবে হতবাক হয়েছি।

সিভিল সার্জন ডা. জাহিদুল ইসলাম বলেন, আব্দুর রহিম ও তার স্ত্রী-স্বজনদের নমুনা সংগ্রহের চেষ্টা চলছে। নমুনা সংগ্রহের পর লাশ দাফন এবং বাকিদের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে রাখার প্রক্রিয়া করা হবে।

অর্থসূচক/কেএসআর