রাজধানীতে বাসায় ঢুকে দুই কিশোরীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

0
89

রাজধানীর কদমতলীর নোয়াখালীপট্টি এলাকায় একটি বাসায় সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার হয়েছে দুই কিশোরী। এই ঘটনায় তিন জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

আজ সোমবার (১০ ফেব্রুয়ারি) সকালে কদমতলী থানার এসআই পঙ্কজ এই তথ্য জানান। এর আগে শনিবার (০৮ ফেব্রুয়ারি) রাত ১০টা থেকে রোববার ভোর ৫টার মধ্যে এ ঘটনা ঘটে।

ধর্ষণের শিকার দুই কিশোরীর বয়স ১৫ ও ১৩ বছর। দুই কিশোরীকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) ভর্তি করেছে পুলিশ।

ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার তিনজন হচ্ছে- রানা ব্যাপারী (৩২), সোহেল ব্যাপারী (৩৮) ও আক্তার আলী (৩৮)।

অভিযোগের সত্যতা নিশ্চিত করে কদমতলী থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) জামালউদ্দিন নীর বলেন, ধর্ষণের শিকার দুই কিশোরী বান্ধবী। তারা ওই বাসায় সেদিন একা ছিলেন।

কদমতলী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) জাহিদুল হক বলেন, ১৬ বছর বয়সী কিশোরীর মা–বাবা তাকে বাসায় রেখে অন্য কোথাও গিয়েছিলেন। ওই দিনই ওই কিশোরীর বাসায় বেড়াতে আসে তার বান্ধবী ১৪ বছর বয়সী অপর কিশোরী। বাসা ফাঁকা পেয়ে শনিবার রাতে রানা, সোহেল ও আক্তার বাসায় ঢুকে। পরে দুই কিশোরীকে জোরপূর্বক হাত-পা-মুখ বেঁধে ধর্ষণ করে।

দুই কিশোরী পর দিন সকালে কদমতলী থানায় মামলা করে। পুলিশ রাতে অভিযান চালিয়ে কদমতলী এলাকা থেকে তিন আসামিকে গ্রেফতার করে। তাদের সোমবার সকালে আদালতে পাঠানো হয়েছে। তাদের প্রত্যেকের ১০ দিন করে রিমান্ড চাওয়া হয়েছে।

অর্থসূচক/কেএসআর