২০ জুলাই থাইল্যান্ডে পুনরায় জাতীয় নির্বাচন

0
82
thailand_election

thailand_electionসাংবিধানিক আদালত কর্তৃক ২ ফেব্রুয়ারির নির্বাচন অবৈধ ঘোষণার প্রেক্ষিতে নতুন করে জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে থাইল্যান্ড। আগামি ২০ জুলাই এই নির্বাচন অনুষ্ঠানের দিন নির্ধারণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছে থাই নির্বাচন কমিশন। বুধবার বিবিসির এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

থাই নির্বাচন কমিশনের বরাত দিয়ে বিবিসি জানিয়েছে, নির্বাচন অনুষ্ঠানের ব্যাপারে সম্মতি প্রদান করেছেন থাই প্রধানমন্ত্রী ইংলাক সিনাওয়াত্রা।

থাই নির্বাচন কমিশনের সচিব পুচং নুত্রাওয়ং জানান, আমরা ২০ জুলাই নতুন নির্বাচনের তারিখ নির্ধারণ করেছি এবং প্রধানমন্ত্রী এতে সম্মতি প্রদান করেছেন। তিনি আরও বলেন, খুব শীঘ্রই রাজার অনুমোদনক্রমে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হবে।

উল্লেখ্য, গত নভেম্বরে ইংলাকের পদত্যাগের দাবিতে হাজার হাজার মানুষ রাস্তায় জড়ো হলে থাইল্যান্ডে রাজনৈতিক সংকট সৃষ্টি হয়। থাই প্রধানমন্ত্রি পদত্যাগ না করে ২ ফেব্রুয়ারি নির্বাচনের ঘোষণা দেন। কিন্তু আন্দোলনকারীরা নির্বাচন প্রত্যাখ্যান করে আন্দোলন অব্যাহত রাখার ঘোষণা দেয়। পরবর্তীতে আন্দোলনকারীরা ব্যাংকক অবরোধের চেষ্টা করলে অচলাবস্থা সৃষ্টি হয় থাইল্যান্ডে।

এত বিরোধিতা সত্ত্বেও ইংলাক নির্ধারিত দিনেই নির্বাচন সম্পন্ন করেন। কিন্তু বিরোধীদের অবরোধের কারণে কয়কটি স্থানে নির্বাচন অনুষ্ঠানে ব্যর্থ হয় থাই সরকার। পরবর্তীতে ইংলাক সরকার সুষ্ঠ এবং গ্রহণযোগ্য নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার ঘোষণা দেয় এবং কর্তৃত্ব অক্ষুণ্ন  রাখার ইংগিত দেয়। উপায়ন্তর না দেখে নির্বাচন অবৈধ ঘোষণা করে আন্দোলনকারীরা সাংবিধানিক আদালতে মামলা ঠুকে দেয়। অবশেষে শুনানি শেষে গত মার্চের মধ্যভাগে আদালত ওই নির্বাচনকে অবৈধ ঘোষিত করে।