পোষা কুকুরের নাক খুলে মাটিতে গড়াগড়ি, তারপর…

অর্থসূচক ডেস্ক

0
101

যুক্তরাষ্ট্রের কভেনট্রির জেড মুরে মায়ের পোষা কুকুরের দেখভাল করতে গিয়ে রীতিমতো নাকানিচোবানি খেয়েছেন। আসল ঘটনা জানলে বিস্ময়ে হতবাক হবেন আপনিও। পোষ্য লেন্নিকে নিয়ে বসে থাকতে থাকতে আচমকাই জেডের চোখ চলে যায় মাটিতে। আর তার নজরে আসে, কী যেন পড়ে রয়েছে সেখানে। জিনিসটির আকার দেখে মনে হয়, অনেকটাই দেখতে লেন্নির নাকের মতো! ব্যস, মাথায় হাত। কুকুরটির খুলে পড়া নাক কীভাবে আবার জোড়া লাগাবেন, এই ভেবেই আকুল!

পরে জেড বলেন, আমি কিছুতেই বুঝতে পারছিলাম না, জিনিসটা কী! খুব কাছে থেকে দেখার পরেও মনে হচ্ছিল লেন্নির নাকটাই খুলে গেছে!

সঙ্গে সঙ্গে টেনশনে ভুগতে শুরু করেন জেড। তার মাথায় তখন একটাই চিন্তা ঘুরছে, কী করে লেন্নি গন্ধ শুকবে? শ্বাস নেবে? নাকটাই বা জোড়া লাগাব কী করে?

তিনি আরও চিন্তায় পড়েন এই ভেবে, লেন্নির নিশ্চয়ই খুব ব্যথা করছে। তিনি তার মাকে কী জবাব দেবেন! কারণ, মা তো তার কাছে রেখে গেছেন লেন্নিকে।

এতক্ষণে আপনিও শেষে কী হল এই ভেবে দাঁতে নখ কাতে শুরু করেছেন উত্তেজনায়! না, শেষচা ততটাও খারাপ কিছু হয়নি। জেডের দশা দেখে নিমেষে চারপাশে মানুষ জড়ো হয়ে যান। তাদেরই একজন জিনিসটি মাটি থেকে কুড়িয়ে দেখান, ওটি একটি খেলনা। লেন্নির নাকের মতোই দেখতে। কিন্তু লেন্নির নাক নয়।

জেডের কথায়, এই কথা জানার পর আমি আশ্বস্ত হলাম। আর জিনিসটা হাতে নিয়ে দেখলাম সাহস করে। দেখলাম, লেন্নির নাক তার জায়গা মতোই আছে। খুলে পড়ে যায়নি। এটি নিছকই খেলনা।

উত্তেজনা আর কৌতুকের উপাদানে মোড়া এই ভিডিও এবং পোস্ট স্বাভাবিক ভাবেই মন কেড়েছে নেটিজেনের। ১ লাখ শেয়ার, ২ লাখ মন্তব্য তারই প্রমাণ।

জেড নিজেই পরে স্বীকার করেছেন, ভয়ে আমার আত্মারাম খাঁচা ছাড়া হোয়ার জোগাড় হয়েছিল। পরে সব বোঝার পর হাসতে হাসতে পেটে খিল ধরার মত অবস্থা।

সূত্র: এনডিটিভি

অর্থসূচক/কেএসআর