রাজশাহীতে তিন দিন ধরে জাতীয় পত্রিকা পাচ্ছে না পাঠকরা

0
84
পত্রিকা

পত্রিকারাজশাহীতে সংবাদপত্র হকার্স ও এজেন্টদের মধ্যে পত্রিকার কমিশন নিয়ে দ্বন্দ্বের জের ধরে গত তিন দিন ধরে ঢাকা থেকে কোনো জাতীয় দৈনিক আসেনি। ফলে জাতীয় পত্রিকা পাঠ থেকে বঞ্চিত রাজশাহীর নিয়মিত পাঠকরা। এতে করে অনলাইন পত্রিকার ওপরই নির্ভর করতে হচ্ছে পাঠকদের।

এজেন্ট ও হকার নেতৃবৃন্দ বলছেন, আগামিকাল রোববার সন্ধ্যায় সমঝোতা বৈঠকের আগ পর্যন্ত পত্রিকা আসার কোনো সম্ভাবনাও নেই। এদিকে রাজশাহীর সংবাদপত্র শ্রমিকরা শনিবার সকালেও বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে।

রাজশাহী সংবাদপত্র এজেন্ট ফোরামের নেতা জুগলি কিশোর জানান, শ্রম অধিদপ্তরের সংবাদপত্র কমিশন নীতিমালা হকাররা মেনে চলছে না। তারা এজেন্টদের ঠিকমতো পত্রিকা বণ্টনের পর টাকা-পয়সা পরিশোধ করছে না। আমরাও কোম্পানিদের টাকা পরিশোধ করতে পারছি না। তাই কোম্পানিগুলো রাজশাহীতে পত্রিকা পাঠানো সাময়িক বন্ধ রেখেছে।

তিনি জানান, বিষয়টি রাজশাহী জেলা প্রশাসককে জানানো হয়েছে। এ নিয়ে রোববার সন্ধ্যা ৭টায় এজেন্ট ফোরাম ও রাজশাহী হকার্স শ্রমিক ইউনিয়নের মধ্যে সমঝোতা বৈঠকের কথা রয়েছে।

তবে অভিযোগ অস্বীকার করেছেন রাজশাহী শহর সংবাদপত্র হকার্স শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি রফিকুল ইসলাম দুলাল। তিনি বলেন, শ্রম অধিদপ্তরের সম্পাদিত নীতিমালা না মেনে এজেন্টরা টাকা আদায় করছিলো। প্রতিবাদে আমরা বিক্ষোভ করে আসছি। বিষয়টির সুষ্ঠু সমাধান না হওয়ার আগেই তারা পত্রিকা আনা বন্ধ করে দিয়েছে। এর ফলে রাজশাহীর প্রায় সাড়ে তিন শ’ হকার আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন। ৩০ থেকে ৩৫ হাজার পাঠক পত্রিকা পাঠ থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন।

এমআই/সাকি