পুরান ঢাকাবাসীকে নিয়ে জবিতে মঙ্গল শোভাযাত্রা

0
90
jnu mongol shubajatra

jnu mongol shubajatraপুরান ঢাকাবাসীকে সঙ্গে নিয়ে বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্য দিয়ে মঙ্গল শোভাযাত্রা পালন করেছে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। এ সময় শোভাযাত্রায় হারিয়ে যাওয়া পুরান ঢাকার বিভিন্ন ঐতিহ্য ফুটিয়ে তোলা হয়েছে।

পয়লা বৈশাখ উপলক্ষ্যে সোমবার সকাল ৯টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা–কর্মচারী, ব্যবসায়ী সংগঠন, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের অংশগ্রহণে এ মঙ্গল শোভাযাত্রাটি বের হয়।

শোভাযাত্রাটি বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস ছাড়াও পুরান ঢাকার নর্থব্রুক হল রেড, বাংলাবাজর, পাটুয়াটুলী, ইসলামপুর রোড, বাবু বাজার, তাঁতী বাজার, রায়সাহেব বাজার মোড়, জনসন রোড ও লক্ষ্মীবাজার হয়ে ক্যাম্পাসে এসে শেষ হয়।

এ সময় শিক্ষার্থীরা রং বে-রঙ্গের মুখোশ, ঢাক, ঢোল, বাঁশিসহ হারিয়ে যাওয়া বিভিন্ন বাদ্যযন্ত্র নিয়ে নেচে গেয়ে শোভাযাত্রাটি উদযাপন করেন।

শোভাযাত্রা শেষে বিশ্ববিদ্যালয় সঙ্গীত বিভাগ, উদীচী সাংস্কৃতিক কেন্দ্র, আবৃত্তি সংসদ, বিএনসিসি, রোভার স্কাউট, ডিবেটিং সোসাইটি, ফিল্ম সোসাইটিসহ অন্যান্য সাংস্কৃতিক সংগঠন ও শিক্ষকদের অংশগ্রহণে আবৃত্তি, গান, নাটক, নৃত্য, প্রীতি বিতর্কসহ পালাগান ও লোক-সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান শুরু হয়।

এছাড়া, বাংলা নববর্ষ উপলক্ষে পিঠা-পুলি, ইলিশ পান্তাসহ পুরান ঢাকার ঐতিহ্য নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস ও জবি টিএসসিতে বিভিন্ন প্রদর্শনীর ব্যাবস্থা করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রধান ফটকের সামনে গ্রামীণ হারিয়ে যাওয়া ঐতিহ্যের প্রতীক মেলার আয়োজন করা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান বলেন, পুরান ঢাকা শুধু বাংলারই নয়, বরং উপমহাদেশের ইতিহাস-ঐতিহ্যের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। এক সময় রাজধানীর প্রাণকেন্দ্র ছিল পুরান ঢাকা। কিন্তু কালক্রমে এখানকার উৎসবগুলো নতুন ঢাকামুখী হয়ে পড়েছে। আমরা চেষ্টা করছি পুরান ঢাকার উৎসবপ্রবণ মানুষদের সহযোগিতায় সে ঐতিহ্য আবারও ফিরিয়ে আনতে।

এমআই/কেএনআর