রাজশাহীতে বর্ষবরণের ব্যাপক প্রস্তুতি, জমছে কেনাকাটা

0
74

Rajsahi_noborso_1এসো হে বৈশাখ, এসো এসো…। দুইদিন পরেই আসছে বাঙ্গালীর প্রাণের উৎসব পহেলা বৈশাখ। সারাদেশের মতো রাজশাহীতেও ইতোমধ্যে কেনাকাটা, হালখাতার প্রস্তুতি, মেলা আর মঙ্গল শোভাযাত্রার মাধ্যমে বর্ষবরণের ব্যাপক প্রস্তুতি জানান দিচ্ছে এটি বাঙালীর সর্বজনীন উৎসব।

সাধ ও সাধ্যের সমন্বয় ঘটিয়ে বর্ষবরণ করতে রাজশাহী জুড়ে চলছে জাঁকজমক প্রস্তুতি। বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা, পান্তা-ইলিশ, লালপেড়ে সাদা শাড়ি আর নানা কারুকার্যের পাঞ্জাবিসহ বাঙালি খাবারের নানা আয়োজন নিয়ে এখন ব্যস্ত হয়ে উঠেছেন নগরবাসী।

বর্ষবরণের মূল আকর্ষণে রয়েছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা বিভাগ। মঙ্গল শোভাযাত্রার ব্যাপক প্রস্তুতি নিচ্ছে চারুকলা বিভাগের শিক্ষক শিক্ষার্থীরা।

এদিকে রাজশাহী মহানগরীর বিপণি বিতান, মার্কেট শপিংমল থেকে শুরু করে ফুটপাথে ছেয়ে গেছে বৈশাখী সামগ্রী ও রকমারি পোশাকে। পহেলা বৈশাখ যতই সামনে আসছে বেচাকেনাও ততই বাড়ছে। এবার  রাজনৈতিক অস্থিরতা না থাকায় বেচাবিক্রি ভালো হচ্ছে বলে জানালেন ব্যবসায়ীরা।

মহানগরীর সাহেব বাজার আরডিএ মার্কেট, নিউমার্কেট ও অন্যান্য বিপনী বিতানগুলোতে ক্রেতার ভীড় বাড়তে শুরু করেছে। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বিশেষ করে সন্ধ্যার পর সাহেববাজারে ক্রেতার উপচেপড়া ভিড়ে পা রাখার জায়গা থাকছে না। শিশু-কিশোর-কিশোরী, গৃহবধূ, বয়স্ক সবায় ব্যস্ত কেনাকাটায়।

আরডিএ মার্কেটের লিজা ফ্যাশন হাউজের স্বত্তাধীকারী আয়েশা আক্তার লিজা জানান, বৈশাখ উপলক্ষে দোকানে বিভিন্ন ধরনে পোষাক আয়োজন করা হয়েছে। সাধ্যের মধ্যে সবকিছু পাওয়া যাচ্ছে বলে জানান তিনি। এর মধ্যে শাড়ী, থ্রি-পিচ ছোট মেয়েদের পোষাকে হাতের কাজ করে বিক্রি করছেন।

নিউমার্কেটর ফ্যাশন হাউসের স্বত্বাধিকারী ওলি জানান, বৈশাখী বেচাবিক্রি শুরু হয়ে গেছে। ক্রেতারা যাচ্ছেন পছন্দ করছেন, কিনছেন নিজের ও পরিবারের অন্য সদস্যদের জন্য।Rajsahi_noborso_2

অন্যদিকে বৈশাখ উপলক্ষে শিশুদের পোষাকের দোকানেও বেশ বিক্রি লক্ষ্য করা লক্ষ করা গেছে। শিশুদের পোষাকের মধ্যে সাদা ফতুয়া ও লাল ধুতীর সাথে ফতুয়ার উপরে একতারা, তবলা, একতারা দ্বোতারা ছাপানো পোষাক বেশি বিক্রি হচ্ছে বলে জানান দোকানিরা।

নববর্ষ উপলক্ষে অন্যান্য বছরের চেয়ে এবার নববর্ষের প্রতিটি পণ্যের দাম বেশী বলে ক্রেতারা অভিযোগ করেছেন। আরডিএ মার্কেটে কেনাকাটা করতে আসা পারমিতা আক্তার জানান, বাজারে নানা ধরণের নতুন নতুন পোশাক থাকলেও দাম কিন্তু হাতের নাগালের মধ্যে নয়। বিক্রেতেরা তাদের ইচ্ছা মতো দাম রাখছে।

রাজশাহী ব্যাবসায়ী সমন্বয় পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সেকেন্দার আলী জানান, এবার পহেলা বৈশাখ উপলক্ষে নগরীতে কোটি টাকার উপরে ব্যবসা হবে হবে বলে আশা করছেন তিনি।