‘সরকার সবার জন্য বাঙালি জাতীয়তা চাপিয়ে দিয়েছে’

0
64

govtবিতর্কিত পঞ্চদশ সংশোধনী আইন পাস করে দেশে সবার জন্য বাঙালি জাতীয়তা চাপিয়ে দিয়েছে সরকার। পার্বত্যবাসী এই আইন মানবে না বলে জানালেন গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের সভাপতি নতুন কুমার চাকমা।

শুক্রবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সংগঠনের বর্ষপূর্তিকে সামনে রেখে আয়োজিত র‌্যালী পরবর্তি সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন।

নতুন কুমার চাকমা বলেন, নবম সংসদ নির্বাচনী ইশতেহারে ‘পার্বত্য চুক্তি’ পূর্ণ বাস্তবায়নের অঙ্গিকার করেছিল আওয়ামী লীগ সরকার। কিন্তু তাদের ক্ষমতার পাঁচ বছর অতিবাহিত হয়ে নতুনভাবে আবার তারা ক্ষমতায় এসেছে। অথচ সে অঙ্গিকার এখনও বাস্তবায়ন হয়নি। তাই আমরা সরকারের কাছে স্ব-স্ব জাতিসত্ত্বার স্বীকৃতির দাবি জানাই।

তিনি আরও বলেন, সরকার পার্বত্য চট্টগ্রামে সেনা মোতায়েন করে রেখেছে। সেখানে সরকার সেনা-সেটলারদের লেলিয়ে দিয়ে পাহাড়ি জাতিসত্ত্বার মানুষকে বংশ পরম্পরায় বাস্তুভিটা ও জমি থেকে উচ্ছেদের প্রক্রিয়া চালাচ্ছে। তাই পার্বত্য এলাকা থেকে সেনা-সেটলার প্রত্যাহারের আহ্বান জানাই।

সমাবেশে পার্বত্য চট্টগ্রামে বৈসাবি উৎসবে তিন দিনের ছুটি নিশ্চিত করতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান তিনি।

এ সময় ৫ জানুয়ারির নির্বাচনকে সাজানো নাটক অভিহিত করে তিনি বলেন, অনতিবিলম্বে সকল দলের অংশগ্রহণে একটি সুষ্ঠু, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন দিতে হবে।

এ সময় সংক্ষিপ্ত সমাবেশে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সভাপতি থইক্যচিং মারমা, হিল উইম্যানস ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় নেত্রী রীনা দেওয়ানসহ কেন্দ্রীয় নেতারা বক্তব্য দেন।

জেইউ/এএস