আইপিএলে অনিশ্চিত চেন্নাই কিংস ও রাজস্থান রয়ালস

0
59

chennai super kings vs rajasthan royalsআইপিএল এর সপ্তম আসর শুরু হবে আগামী ১৬ এপ্রিল। আইপিএল-এ চেন্নাই সুপার কিংস ও রাজস্থান রয়ালস দলে ম্যাচে পাতানো নিয়ে তদন্ত চলায় দল দুটিকে প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে দেওয়া ঠিক নয় বলে  জানিয়েছে ভারতীয় আদালত। আর আদালতের এ মন্তব্যের কারণে আগামি আসরে এ দু’টি দলের অংশগ্রহণ নিয়ে দেখা দিয়েছে অনিশ্চয়তা।

বৃহস্পতিবার দিল্লির আদালত আইপিএলের ষষ্ঠ আসরে রাজস্থান রয়ালসের তিন ক্রিকেটারের ম্যাচ পাতানোর মামলায় এ পর্যবেক্ষণ দেয় বলে জানায় এনডিটিভি।

ক্রিকেট বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল টুর্নামেন্ট ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে স্পট ফিক্সিংয়ের অভিযোগে গত মে মাসের মাঝামাঝি সময়ে শ্রীশান্তসহ রাজস্থান রয়্যালসের তিন ক্রিকেটারকে গ্রেপ্তার করা হয়। তারপর থেকে এ কেলেঙ্কারির সঙ্গে যুক্ত অনেকের পরিচয় ফাঁস হতে থাকে, গ্রেপ্তার হন আরো কয়েকজন। তারই ধারাবাহিকতায় প্রেপ্তার হন চেন্নাই সুপার কিংসের ‘প্রিন্সিপাল’ ও ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের চেয়ারম্যান শ্রীনিবাসনের জামাই গুরুনাথ মায়াপ্পন। ইন্ডিয়া সিমেন্ট চেন্নাই সুপার কিংসের মালিক। ভারতীয় অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি ও আইপিএলের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সুন্দর রামন প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তা।

এর আগে গুরুনাথ মায়াপ্পনের বিরুদ্ধে আইপিএলে বাজি ধরা এবং ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রমাণ পায় বিচার বিভাগীয় তদন্ত কমিশন। সাবেক বিচারপতি মুকুল মুডগালের নেতৃত্বাধীন এই কমিশন এর আগে তাদের যে প্রতিবেদন সুপ্রিম কোর্টে জমা দেয়, তার ওপরই এ শুনানি চলছে।

রাজস্থান রয়্যালসের তিন ক্রিকেটারকে আটকের পর মালিক রাজ কুন্দ্রার বিরুদ্ধে তদন্ত করছে ভারতীয় পুলিশ। আর পূর্ণাঙ্গ  প্রতিবেদন পেতে আরও তদন্ত প্রয়োজন বলেও কমিশন সুপারিশ করে। ভারতের সর্বোচ্চ আদালত কমিশনের এই সুপারিশ আমলে নিয়ে সব বিষয়েই তদন্তের জন্য বলেছে। আর এ তদন্ত শেষ না হওয়ায় আগামি আসরে চেন্নাই সুপার কিংস ও রাজস্থান রয়ালসের অংশ নেওয়া উচিত নয় বলে মন্তব্য করেছে আদালত।