৯৮ রানেই শেষ অনেক প্রত্যাশার ম্যাচ

0
74
tamm iqbal

tamm iqbal১৭২ রানের জয়ের প্রত্যাশায় ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৯৮ রানেই শেষ হয়ে গেল বাংলাদেশের ইনিংস। ফলে প্রথম ম্যাচে ৭৩ রানের বড় ব্যবধানে হেরে নিজেদের সুপার টেন পর্বের যাত্রা শুরু করলো বাংলাদেশ। আর দ্বিতীয় ম্যাচে জয়ের ফলে টুর্নামেন্টে টিকে থাকলো বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা।

মঙ্গলবার মিরপুর শেরে-এ- বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে ওয়েস্ট ইন্ডিজের করা ১৭১ রানের টার্গেটকে তাড়া করতে নেমে শুরুতেই বিপদে পড়ে বাংলাদেশ।

দলীয় ১৪ রানের মাথায় তামিম ইকবাল আউট হওয়ার পর শুরু হয় বাংলাদেশ দলের ব্যাটিং বিপর্যয়। এরপর ১৬ রানে আনামুলের স্টাম্পিং এবং পরের বলে সাকিব বোল্ড আউটের মাধ্যমে এ বিপর্যয় চুড়ান্ত পর্যায়ে পৌছায়। মাঝখানে মমিনুল ও মুশফিক কিছুটা প্রতিরোধ গড়লেও ৫১ রানে আবার পতন শুরু হয় টাইগারদের। মাত্র ৭ রানের মাখায় আউট হলেন মমিনুল,মুশফিক, সাব্বির ও মাহমুদুল্লাহ। দলীয় ৫৮ রানে সাত উইকেট হারানোর পর সর্বনিম্ন স্কোরে আউট হওয়ার ভয় থেকে বের করে নিয়ে আসেন জিয়া ও সোহাগ গাজী। হিটার ম্যান জিয়া বড় কোন সর্ট না খেলেই ১৩ বল খেলে ৯ রানে আউট হয়ে যান। তবে শেষ দিকে কিছুটা ভালো করেন বাংলাদেশের দশম ব্যাটসম্যান মাশরাফি মোর্তজা। ৭৩ রানে জিয়া আউট হলেও মাশরাফির কল্যাণেই শেষ পর্যন্ত  রানের সংগ্রহ পায় বাংলাদেশ। মাশরাফি শেষ পর্যন্ত ১৭ বল ১৯ রান করে শেষ ওভারে আউট হন। এছাড়া মুশফিকুর রহমান ২২ ও মমিনুল ১৬ রান করেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজের পক্ষে স্যামুয়েল বদ্রি ৪টি উইকেট শিকার করেন। এছাড়া স্যান্তুকি ৩টি ও রাসেল নেন ২টি করে উইকেট।

এর আগে স্মিথ-গেইলের দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশকে ১৭২ রানের জয়ের টার্গেট দিয়ে ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। বাংলাদেশি ফিল্ডারদের মিস ফিল্ডিং এবং মুশফিকুর রহিমের বল ছেড়ে দেওয়ার ম্যাচে ২০ ওভার শেষে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৭২ রান সংগ্রহ করে তারা। বাংলাদেশি বোলাররা মোটামুটি ভাল বল করলেও স্মিথ কোন বোলারকে পাত্তাই দিলেন না। মাত্র ৪৩ বল খেলে ৭২ রান করে আউট হওয়ার আগে দলীয় স্কোর ১২ ওভারে ৯৭ রান। পরের বলে সাকিব সিমন্সকে স্টাম্পিংয়ের মাধ্যমে ফিরালেও রানের গতি থামাতে পারেননি কোন বোলার। একের পর এক ক্যাচ মিস করে ১৫১ রানের মাথায় তামিমের দুর্দান্ত ক্যাচে জিয়া প্যাভিলিয়নে পাঠালেন গেইলকে। আর  জিয়ার ওভারে  মাহমুদুল্লাহ একাধিক ক্যাচ মিস করলেও চমক দেখিয়েছেন আল আমিন। শেষ ওভারে মাত্র ৪ রানে ৩ উইকেট নিয়ে ১৭১ রানে থামাতে সক্ষম হন ওয়েস্ট ইন্ডিজের ইনিংস।

এইউ নয়ন