বিরুশকার বিবাহোত্তর সংবর্ধনায় ভারতের প্রধানমন্ত্রী

অর্থসূচক ডেস্ক

0
51
বিরাট কোহলি ও আনুশকা শর্মার বিয়াহোত্তর সংবর্ধনায় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি

দীর্ঘ দিনের প্রেমের সম্পর্ককে বিয়েতে রূপ দিয়েছেন ক্রিকেট ও চলচ্চিত্রের আলোচিত জুটি বিরুশকা। অনেক গোপনীয়তার মধ্যদিয়ে গত ১১ ডিসেম্বর শেষ হয়েছে বিরাট কোহলি ও আনুশকা শর্মা জুটির বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা। এরপরই ঘোষণা দেন ২১ ডিসেম্বর দিল্লিতে প্রথম আর এর ৫ দিন পর মুম্বাইয়ে দ্বিতীয় বিবাহোত্তর সংবর্ধনা আনুষ্ঠিত হবে।

বিরাট কোহলি ও আনুশকা শর্মার বিয়াহোত্তর সংবর্ধনায় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি

এরপর দেশে ফিরেই বুধবার নয়াদিল্লিতে প্রধানমন্ত্রীর দফতরে গিয়ে দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে দেখা করেন তারা। এবং দিল্লিতে প্রথম বিবাহোত্তর সংবর্ধনায় আমন্ত্রণ জানান ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে। আমন্ত্রণ রক্ষাও করলেন মোদি। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় দিল্লির তাজ হোটেলের ডিপ্লোম্যাটিক এনক্লেভ দরবার হলে এই নবদম্পতির বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী।

বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে পাঞ্জাবের মেয়ে আনুশকা শর্মা সেজেছেন একেবারে বাঙালি কনের বেশে। পরেছেন লাল রঙের বেনারসি, সিঁথিতে সিঁদুর, খোঁপায় ফুল আর হাতে চূড়া (চুরি)। আরও ছিল গলাভর্তি আনকাট ডায়মন্ডের চোকার ও কানে ঝুমকো। শাড়ির ডিজাইন করেছেন বাঙালি ডিজাইনার সব্যসাচী মুখোপাধ্যায়।

বিরাট কোহলি ও আনুশকা শর্মা

অনুষ্ঠানে বিরাট কোহলি পরেছেন সব্যসাচী মুখোপাধ্যায়ের ডিজাইন করা সিল্কের কালো রঙের বন্ধ গলা শেরওয়ানি। তাতে আছে ১৮ ক্যারেটের সোনার বোতাম। সঙ্গে মানানসই সিল্কের ব্রোকেড চুড়িদার। কাঁধে স্টাইল করে রাখা পশমিনা শাল।

মোদি ছাড়াও আমন্ত্রিতদের তালিকায় ছিলেন কপিল দেব, বীরেন্দ্র শেবাগ, যুবরাজ সিং, সুরেশ রায়না ও আশীষ নেহরা। এ ছাড়া ছিলেন অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি, অ্যাক্টিং বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সি কে খান্না, আইপিএল চেয়ারম্যান রাজীব শুক্লাসহ বিভিন্ন দেশের কূটনীতিকেরাও।

অর্থসূচক/এইচ আর