২৪ ঘণ্টার মধ্যে লেকহেড স্কুল খুলে দেওয়ার নির্দেশ আদালতের

নিজস্ব প্রতিবেদক

0
68
লেকহেড স্কুল। ফাইল ছবি

জঙ্গি কার্যক্রমে পৃষ্ঠপোষকতা, ধর্মীয় উগ্রবাদে উসকানি দেওয়াসহ কয়েকটি অভিযোগে বন্ধ করে দেওয়া রাজধানীর লেকহেড গ্রামার স্কুল ২৪ ঘণ্টার মধ্যে খুলে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে হাই কোর্ট। এর আগে লেকহেড গ্রামার স্কুল বন্ধ করা কেন আইনগত কর্তৃত্ব বহির্ভূত হবে না এবং কেন বন্ধ স্কুল খুলে দেয়ার নির্দেশ দেয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে গত বৃহস্পতিবার রুল জারি করেছিল হাইকোর্ট।

আজ মঙ্গলবার এ বিষয়ে জারি করা রুলের ওপর শুনানি শেষে বিচারপতি সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি মো. আতাউর রহমান খানের হাই কোর্ট বেঞ্চ এ রুল দেয়।

লেকহেড গ্রামার স্কুল। ফাইল ছবি

পরবর্তীতে আবেদনকারীপক্ষের আইনজীবী রাশনা ইমাম সাংবাদিকদের বলেন, আদালত ২৪ ঘণ্টার মধ্যে লেকহেড গ্রামার স্কুল খুলে দিতে বলেছে। একইসঙ্গে সরকার যদি ওই স্কুলে জঙ্গি কার্যক্রমের কোনো অভিযোগের তদন্ত করতে চায়, তাহলে স্কুল কর্তৃপক্ষকে পূর্ণ সহযোগিতা করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এ সময় রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত তালুকদার।

লেকহেড গ্রামার স্কুল বন্ধ করা কেন আইনগত কর্তৃত্ব বহির্ভূত হবে না এবং কেন বন্ধ স্কুল খুলে দেয়ার নির্দেশ দেয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে গত বৃহস্পতিবার রুল জারি করে হাইকোর্ট। এরপর গত রোববার ও সোমবার এই রুলের উপর শুনানি নিয়ে আদালত মঙ্গলবার রায়ের দিন ধার্য্য করেন।

রাজধানীর ধানমণ্ডি ও গুলশানের ২টি শাখাসহ লেকহেড গ্রামার স্কুলের সকল কার্যক্রম বন্ধের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে ৩টি রিট করা হয়। স্কুলের নতুন মালিক ও ১২ জন অভিভাবক এই রিটগুলো করেন। এর আগে গত নভেম্বর ধানমণ্ডি ও গুলশানের দুটি শাখাসহ লেকহেড স্কুলের সকল শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধ করার নির্দেশ দেয় শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে গত শনিবার স্কুলটি সিলগালা করে দেওয়া হয়। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম-সচিব সালমা জাহান স্বাক্ষরিত চিঠিতে ঢাকা জেলা প্রশাসককে এই নির্দেশনা দেওয়া হয়। এতে বলে হয়, এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি সরকারের অনুমোদন নেয়নি।

এছাড়া প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ধর্মীয় উগ্রবাদ, উগ্রবাদী সংগঠন সৃষ্টি, জঙ্গি কার্যক্রমের পৃষ্ঠপোষকতাসহ স্বাধীনতার চেতনাবিরোধী কর্মকাণ্ডে যুক্ত বলে চিঠিতে উল্লেখ করা হয়।

অর্থসূচক/এইচজে/কে এম