শুভ জন্মদিন তামিম

0
94
তামিম ইকবাল

তামিম ইকবাল২০০৫ সালে অনূর্ধ ১৯ ক্রিকেটে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশ। যে বাংলাদেশের নাম ক্রিকেটবিশ্বের অনেকই শুনেননি সেই দেশের ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল ক্রিকেটের সূতিকাগার ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ৭১ বলে ১১২ রান করে বাংলাদেশকে জয় পাইয়ে দিয়েছিলেন।

বাংলাদেশের দলের মারকুটে ব্যাটসম্যান তামিম ইকবালের ২৫ তম জন্মদিন আজ। ‘শুভ জন্মদিন তামিম’। ক্রিকেটে তামিমের অভিষেক কি করে হলো সে গল্পটা জানতে হলে ফিরে যেতে হবে একটু পেছনে। বড় ভাই নাফিস ইকবাল আর চাচা আকরাম খান এর হাত ধরে ৯ ফেব্রুয়ারি ২০০৭ সালে হারারেতে জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে একদিনের ম্যাচে তার অভিষেক হয়। আর ৪-৮ জানুয়ারি ২০০৮ সালে ডাবলিনে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তার টেস্ট অভিষেক ঘটে।

তামিমের জন্ম চট্টগ্রামে। ১৯৮৯ সালের ২০ মার্চ । বিশ্বকাপ খেলেন ২০০৭ সালে। সেদিন ভারতের বিপক্ষে তার ৫৩ বলে ৫১ রানের ঝড়ো ইনিংসটি সেদিন ভারতীয় দলের বিরুদ্ধে টাইগারদের জয়ে দারুন ভূমিকা রেখেছিলো। ২০০৯ সালের জুলাই-আগস্ট মাসে বাংলাদেশে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে গেলে তামিম ইকবাল তার প্রথম টেস্ট শতক করেন। একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচে প্রথম শতক করেন আয়ারল্যান্ড দলের বিপক্ষে। বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের সাবেক প্রশিক্ষক জেমি সিডন্স তামিম সম্পর্কে বলেন, ‘তামিম ইকবালের মাঝে আন্তর্জাতিক মানের উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান হবার যোগ্যতা আছে’।

২০১১ সালে তামিম উইজডেন ক্রিকেটার্স অ্যালমেনাক ম্যাগাজিন কর্তৃক বছরের সেরা পাঁচ ক্রিকেটারের একজন হিসেবে নির্বাচিত হন। দক্ষিন আফ্রিকার গ্রায়েম সোয়ান ও ভারতের বিরেন্দর শেওয়াগকে পেছনে ফেলে তামিম এ খেতাব জিতেছিলেন।

ফর্মের ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে পারেননা বলে অনেকের অভিযোগ রযেছে তামিমকে নিয়ে। অনেকে আবার বলে থাকেন তার খেলায় মাথা ঠাণ্ডা রাখতে পারেননা তিনি। তবি পরিসংখ্যান বলে দেয় যখন তখন প্রতিপক্ষকে ঝলসে দিতে পারে তামিমের ব্যাট।

তাই তামিমের কাছে টাইগার দলের প্রত্যাশাও থাকে অনেক। শুরুটা যদি তার হাত দিয়ে ভাল হয় তবে ফুরফুরে মেজাজে থাকেন মিডল অর্ডাররা। জন্মদিনে হংকংয়ের বিরুদ্ধে ম্যাচে চাপ ছাড়াই ফুরফুরে মেজাজে খেলে আজ দর্শকদের মাতাবেন তার কাছে এমনটাই প্রত্যাশা ক্রীড়ামোদীদের।

এমআর/এসএম