‘নতুন প্রজন্মকে আধুনিক ও প্রযুক্তির শিক্ষায় শিক্ষিত করা হবে’

নিজস্ব প্রতিবেদক

0
63
নতুন প্রজন্মকে বিশ্বের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করে চলার জন্য আধুনিক ও প্রযুক্তিগত ভাবে আরও সমৃদ্ধ করা হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।
 
মঙ্গলবার ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড মিলনায়নতনে আয়েজিত ঢাকা বোর্ডের কর্মচারি ইউনিয়নের অভিষেক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
মন্ত্রী বলেন, নতুন প্রজন্ম এখন আরও অনেক বেশি সমৃদ্ধ হতে চায়। জ্ঞান-বিজ্ঞানের বিভিন্ন শাখায়  বিচরণ করছে আমাদের শিক্ষার্থীরা। তাই এই প্রজন্মকে আরও বেশি দক্ষ করতে আধুনিক ও প্রযুক্তিগত শিক্ষায় শিক্ষিত করা ছাড়া অন্য কোন বিকল্প নাই।
 
তিনি বলেন, আমি যখন মেট্রিক পরীক্ষা দিয়েছিলাম তখন দিনে ২টা পরীক্ষা হতো, কিন্তু এখন একটা পরীক্ষার মাঝে আমরা ২-৩দিন বন্ধ রাখি। পূর্বে শিক্ষার্থী অল্প থাকলেও সব কিছু ছিলো অ্যানালগ। প্রবেশপত্র পর্যন্ত হাতে তৈরি করতে হতো। এখন শিক্ষার্থী বেড়েছে, সঙ্গে প্রযুক্তির ব্যবহারও বেড়েছে। তাই একই সঙ্গে অনেক শিক্ষার্থীর পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হচ্ছে।
 
শিক্ষা ব্যবস্থাকে ডিজিটাল প্রক্রিয়ার মধ্যে আনার আপ্রাণ চেষ্টা করা হচ্ছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, আগে পরীক্ষার রেজাল্ট জানার জন্য কত রকম কৌশল অবলম্বন করতে হতো। রেজাল্ট পেতে ১-২ দিন অপেক্ষা করতে হতো। আর এখন শিক্ষার্থীরা ঘরে বসে রেজাল্ট পাবলিশ হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই তা জেনে যাচ্ছে। এটা আমাদের চ্যালেঞ্জ ছিলো। আমরা করতে পেরেছি।
 
নাহিদ বলেন, বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়তে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে। এখানে আমরা সবাই কর্মী। নিজ নিজ কাজ যথাযথভাবে সম্পাদন করলেই বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়া সহজ হবে। শিক্ষা ক্ষেত্রে দেশ অগ্রসর হলেই সামগ্রিক ভাবে দেশ এগিয়ে যাবে। সাসটেইনেবল ডেভেলপমেন্ট গোল অর্জন করতে হলে সততার সঙ্গে সকলকে কাজ করে যেতে হবে।
 
ঢাকা শিক্ষা বোর্ড একটি ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা বোর্ড উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, এই বোর্ড বাংলাদেশের শিক্ষা ব্যবস্থায় ‘বোর্ড অব মাদার’ হিসেবে বিবেচিত। তাই এখানে যারা কর্মরত রয়েছেন তাদের দায়িত্বও বেশি। তাই সকলেই নিজ নিজ কাজ যথাযথভাবে করে যাবেন বলে আমি বিশ্বাস করি।
 
তিনি বলেন, সরকারের সকল কর্মচারি নির্দিষ্ট বিধির মাধ্যমে পরিচালিত হয়। ইচ্ছা করলেই কোন কর্মকর্তা-কর্মচারি বিধি বহির্ভূত কাজ করতে পারে না। ইউনিয়ন হয়েছে সেটা অবশ্যই ভালো। তবে ইউনিয়নের কাজ যেনো সাধারণের কল্যাণের জন্য হয়। তবেই ইউনিয়নের উদ্যেশ্য সার্থক হবে।
 
ঢাকা মাধ্যমিক উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড কর্মচারী ইউনিয়নের সভাপতি মো. বাবুল আকনের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, মাধ্যমিক উচ্চ শিক্ষা বিভাগের মহাপরিচালক . এস এম ওয়াহিদুজ্জামান কর্মচারী ইউনিয়নের প্রধান পৃষ্ঠপোষক, মাধ্যমিক উচ্চ শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান প্রফেসর মো. মাহবুবুর রহমান এবং ইউনিয়নের পৃষ্ঠপোষক মাধ্যমিক উচ্চ শিক্ষা বোর্ডের সচিব মো. শাহেদুল খবির চৌধুরী
 
স্বাগত বক্তব্য রাখেন, কর্মচারী ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক মো. জালাল উদ্দিন
 
কর্মচারী ইউনিয়নের নবনির্বাচিত কমিটির সদস্যদের শপথ বাক্য পাঠ করান, মাধ্যমিক উচ্চ শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান প্রফেসর মো. মাহবুবুর রহমান।

রাসেল