টাইগারদের প্রতিপক্ষ নবীন নেপাল

0
74

Bangladesh_cric_march18আবুধাবিতে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপ কোয়ালিফাইংয়ের কোয়ার্টার ফাইনালে হংকংকে ৫ উইকেটে হারিয়ে টি টুয়েন্টি বিশ্বকাপের টিকেট নেওয়া নবীনতম দল নেপাল আজ মুখোমুখি হতে যাচ্ছে স্বাগতিক বাংলাদেশের।

মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় চট্টগ্রামের জহুর আহম্মদ স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে বাংলাদেশের দ্বিতীয় দ্বিতীয় ম্যাচ।

আজকের ম্যাচ সম্পর্কে  নেপাল অধিনায়ক পরশ খারকা জানান, বাংলাদেশ খুবই ভালো দল।  ম্যাচের ফলাফল নিয়ে মোটেও ভাবছি না। টেস্ট প্লেয়িং দলের সঙ্গে খেলার অভিজ্ঞতাটাই বড় বিষয়। যদি কিছু পেয়ে যাই, সেটা হবে বাড়তি পাওয়া।

এসব ছেলেভোলানো কথায় মুশফিক সাকিবরা নেপাল দলকে ছোট দল ভাবলে চলবেনা। তারা জানে ক্রিকেটে অনিশ্চয়তা থাকলেও জয়ের জন্য ভালো খেলার বিকল্প কিছু নেই।

তাই কোনো ধরনের আত্মতুষ্টিতে না ভুগে আজেকের ম্যাচে নেপালকেও সমীহ করবে বাংলাদেশ।

বাংলাদেশের দ্বিতীয় ম্যাচে নেপালের বিরুদ্ধে টাইগারদের একটাই প্রত্যাশা তা হলো জয়। কারন বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে যেতে হলে মাত্র একটি ম্যাচই যথেষ্ট। সে ম্যাচ কার কাছে হারা হল সেটা বড় কথা নয়। এশিয়া কাপে হোম কণ্ডিশনে ভাল খেলেও আফগানদের কাছে হেরেছিল বাংলাদেশ। দেশবাসী অশ্রুসিক্ত করা সে ম্যাচের প্রতিশোধ নিয়ে টি টুয়েন্টির প্রথম বাঁধা আফগানদের বিরুদ্ধে সহজ জয় পেয়েছিল স্বাগতিকরা।

এবারের বিশ্বকাপে জয় দিয়ে যে বাংলাদেশের নবযাত্রা হয়েছে তাদের কাছে দেশবাসীর চাওয়া পাওয়ার অংকের হিসেবটা মিলবে কিনা তা এখন মুশফিক বাহিনীর উপর নির্ভর করছে।

আফগানদের বিরুদ্ধে জয় পেলেও মূল পর্বে এখনই যাওয়া হচ্ছেনা। তার উপর আজকের ম্যাচে নেপালের হয়ে মাঠে নামবে নেপাল দলের টার্ম কার্ড সুভাস খাকুরাল, সাগর,  জ্ঞানেন্দ্র মল্লর ও পরশ কদকার। যে কোনও সময় জ্বলে উঠতে পারে তাদের ব্যাট।

আজকের ম্যাচ নিয়ে মুশফিক বলেন, গত ২-৩ বছর আমরা যেমন খেলেছি, সে তুলনায় গত ২-৩ মাসে সেভাবে রেজাল্ট আসেনি। ফলে পজেটিভ কিছু ফল আসতে শুরু করায় এখন সবার আত্মবিশ্বাসটা অনেক বেড়ে গেছে।

মৃশফিকদের বোলিং, ফিল্ডিং বিভাগে চোখ ধাঁধানো পারফরম্যান্স স্বপ্ন দেখাতে শুরু করেছে দেশবাসিকে।

সাফল্যের এ ধারা পুরো টুর্নামেন্ট জুড়েই ধরে রাখতে চান বাংলাদেশের অধিনায়ক মুশফিক।

টাইগার অধিনায়ক জানান, নিজেরাই ছাড়িয়ে যেতে চান নিজেদের অতীতের ভালোর সীমানাটি। তিনি মনে করেন সেটা একমাত্র সম্ভব দলকে উজ্জীবিত রাখার মাধ্যমে। এই সীমানা ছাড়ানোর প্রথম পদক্ষেপ হিসাবে যে কোনো মূল্যে সুপার টেন এর চৌকাঠ মাড়াতে চান মুশফিক।

অভিষেক দল হিসেবে নেপালকে নিয়ে অতটা টাইগাররা চিন্তাগ্রস্থ নন। তবু জয়ের বিকল্প ভাবছে না মুশফিকরা। একটু সতর্ক এবং নিজেদের খেলাটাই খেললে আজকেও আসতে পারে আরেকটি সহজ জয়।

এমআর