অর্থ আত্মসাত: পূবালী ব্যাংকের সাবেক কর্মকর্তার কারাদণ্ড

প্রতিনিধি

0
50
ছবিটি প্রতীকী।

চট্টগ্রামে পূবালী ব্যাংকের ৯৩ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে করা মামলায় দুইটি মামলায় ব্যাংকটির সাবেক কর্মকর্তাসহ দুইজনকে ৭ বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।

আত্মসাত করা অর্থ পরিশোধ না করলে তাদেরকে আরও এক বছর করে কারাদণ্ড ভোগ করতে হবে।

ছবিটি প্রতীকী।

আজ বুধবার চট্টগ্রাম বিভাগীয় বিশেষ জজ মীর মো. রহুল আমিন এ রায় দেন।

কারাদণ্ড প্রাপ্তরা হলেন- পূবালী ব্যাংকের উত্তর পতেঙ্গা শাখার সাবেক হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা এস এম গোলাম খালেক এবং টেনিকো ইন্ডাস্ট্রিজের স্বত্বাধিকারী এস এম রফিক।

এছাড়া এই মামলায় ৩ জনকে খালাস দেওয়া হয়েছে। তবে মামলার প্রধান আসামি পূবালী ব্যাংকের উত্তর পতেঙ্গা শাখার সাবেক ব্যবস্থাপক আবুল হোসেন মারা যাওয়ায় তাকে অভিযোগ থেকে বাদ দেওয়া হয়।

দুর্নীতি দমন কমিশনের পিপি মেজবাহ জানান, ১৯৮৭ সালের ৮ ডিসেম্বর পূবালী ব্যাংকের পাঁচ কর্মকর্তাসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে বন্দর থানায় দুইটি মামলা করা হয়। এর মধ্যে একটি মামলায় ৩১ লাখ টাকা এবং আরেকটি মামলায় ৬২ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ আনা হয়েছিল।

তদন্ত শেষে ১৯৯৪ সালের ২২ মার্চ আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেছিলের সাবেক দুর্নীতি দমন ব্যুরোর পরিদর্শক মোহাম্মদ ইসলাম। এদিকে ১৯৯৫ সালের ২২ এপ্রিল ১৯৪৭ সালের দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনে অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরুর আদেশ দেন আদালত। মামলায় মোট ১৪ জনের সাক্ষ্য নেওয়া হয়।

দেবব্রত/এসএম