‘আমানতের সুদহার না কমাতে ব্যাংকগুলোকে চাপ’

নিজস্ব প্রতিবেদক

0
60
বক্তব্য রাখছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির- ছবি মহুবার রহমান

আমানতকারীদের স্বার্থ রক্ষায় আমানতের সুদহার না কমাতে ব্যাংকগুলোর উপর চাপ দেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির।

আজ  বুধবার বাংলাদেশ ব্যাংকের জাহাঙ্গীর আলম কনফারেন্স হলে ২০১৭-১৮ অর্থবছরের প্রথমার্ধের জন্য মুদ্রানীতি ঘোষণাকালে তিনি একথা জানান।

বক্তব্য রাখছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির- ছবি মহুবার রহমান

গভর্নর বলেন, ব্যাংক ঋণের সুদহার হ্রাসের পরিমাণ প্রায় পুরোপুরিভাবে আমানতের সুদহারের ওপর চাপাচ্ছে ব্যাংকগুলো। ব্যাংকে  আমানত ও ঋণের সুদহারের ব্যবধান (স্প্রেড)  প্রায় ৫ শতাংশ গড় মাত্রায় বজায় রাখতেই আমানতের সুদহার কমাচ্ছে ব্যাংকগুলো। এতে ব্যাংকে সঞ্চয়ের প্রবণতা কমে যাচ্ছে।

আমানত সুদহারের ওপর চাপ প্রয়োগ না করে পরিচালন ব্যয়ে এবং খেলাপী ঋণজনিত প্রভিশনিং ব্যয়ে সাশ্রয় এনে আমানতকারীদের স্বার্থ রক্ষা করতে ব্যাংকগুলোকে পরামর্শ দেন তিনি।

বাংলাদেশ ব্যাংকের সর্বশেষ প্রতিবেদনে দেখা গেছে, দেশের ৫৭টি তফসিলি ব্যাংকের মধ্যে ২৫টি ব্যাংকের আমানতের সুদহার ৫ শতাংশের নিচে রয়েছে। এর মধ্যে ১৩টি বেসরকারি ব্যাংক, ৮টি বিদেশি ব্যাংক এবং ৪টি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক রয়েছে। অন্যান্য অধিকাংশ ব্যাংকের আমানতের সুদহারও ৫ শতাংশের কাছাকাছি রয়েছে।

এ বিষয়ে অর্থনীতিবিদরা বলছেন, আমানতের সুদহার শুধু নিচেই নামেনি,  মূল্যস্ফীতি থেকেও নিচে নেমে এসেছে। যা খুবই বিপজ্জনক। এতে আমানতকারীরা ব্যাংকের আমানত রাখার ক্ষেত্রে বিমুখ হবেন। যা ব্যাংকিং খাতের জন্য ভালো নয়। আর মানুষের হাতে পুঁজি আটকে গেলে পুরো অর্থনীতিই ক্ষতিগ্রস্ত হবে।

তাদের মতে, পরিস্থিতির উন্নতি করতে না পারলে মানুষ বাড়ি-ঘর কেনার মত জায়গায় বিনিয়োগ করবে। কেউ ব্যাংকে আমানত রাখবে না।

অর্থসূচক/মেহেদী/এসএম