হাসপাতালের টাকা আত্মসাৎ,তিনজনের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি

0
87
dudok_ACC
দুদক কার্যালয়। ছবি- সংগৃহীত
dudok_ACC
দুদক কার্যালয়

সরকারি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে জাতীয় বক্ষ ব্যাধি ইনস্টিটিউট হাসপাতালের সচিবসহ তিন জনের বিরুদ্ধে মামলার অনুমোদন দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। খাদ্যদ্রব্যের সিডিউল পরিবর্তন করে ও ক্রয় মূল্য বেশি দেখিয়ে এ টাকা আত্মসাৎ করা হয়।

রোববার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে কমিশনের নিয়মিত বৈঠকে এ মামলার অনুমোদন দেওয়া হয় বলে জানান কমিশন সূত্র।

অভিযুক্তরা হলেন, জাতীয় বক্ষ ব্যাধি ইনস্টিটিউট হাসপাতালের সচিব মুন্সী সাজ্জাদ হোসেন, স্টোর অফিসার জাহাঙ্গীর আলম ও খাদ্যদ্রব্য সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান যুথী নিপুণ ভাই-বোন ট্রেডার্সের মালিক হাসিনা বেগম।

দুদক সূত্র জানায়, জাতীয় বক্ষ ব্যাধি ইনস্টিটিউট হাসপাতাল এবং এর আওতাধীন জাতীয় অ্যাজমা সেন্টারের জন্য ২০১১-১২ অর্থবছরে খাদ্য দ্রবাদী (চাল,ডাল,দুধ ও তেল) ক্রয়ের জন্য যুথী নিপুণ ভাই-বোন ট্রেডার্সকে দরপত্র প্রদান করা হয়। এতে অভিযুক্ত ব্যক্তিরা পরস্পর যোগসাজসে খাদ্যদ্রব্যের মূল্য নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে বেশি দেখিয়ে সরকারের ১০ লাখ ১৯ হাজার ৩৪৬ টাকা আত্মসাৎ করে। এরমধ্যে তারা চালের মূল্য ৩৭ টাকার পরিবর্তে ৫১ টাকা, মশুর ডাল ৮৮ টাকার পরিবর্তে ১০৫ টাকা, সয়াবিন তেল ১১৬ টাকার পরিবর্তে ১২৫ টাকা, গুড়া দুধ ৫৪৮ এর পরিবর্তে ৬০০ টাকা এবং তরল দুধ ৬০ টাকার পরিবর্তে ৭০ টাকা দেখিয়েছেন। যাতে মূল বাজেটের চেয়ে অতিরিক্ত খরচ দেখিয়ে এ টাকা আত্মসাৎ করেন।

সূত্র আরও জানায়, দুদকের উপ-পরিচালক মো. নুরুল হকের নেতৃত্বে চার সদস্যের টিম অনুসন্ধান শেষে অভিযোগটি প্রমাণিত হওয়ায় দণ্ড বিধির ৪০৯/১০৯ ধারায় ও দুর্নীতি প্রতিরোধ আইন ১৯৪৭ এর ৫(২) ধারায় একটি মামলা দায়েরের অনুমোদন দেয় কমিশন।

উপ-পরিচালক মো. নুরুল হকের নেতৃত্বে অনুসন্ধানকারী অন্য কর্মকর্তারা হলেন, সহকারী পরিচালক রেভা হালদার, সহকারী উপ-পরিচালক খন্দকার নিলুফা জাহান ও মো. আল আমিন।