‘সমালোচনাও থাকবে, রামপালও হবে’

নিজস্ব প্রতিবেদক

0
59
ফাইল ছবি

রামপাল কয়লা বিদ্যুৎকেন্দ্র নিয়ে সমালোচনা থাকলেও সরকার তা বস্তবায়নে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ বলে জানিয়েছেন বিদ্যুৎ, খনিজ ও জ্বালানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু। তিনি দাবি করেছেন এই বিদ্যুৎকেন্দ্র সুন্দরবনের কোনো ক্ষতি করবে না।

ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

আজ শনিবার রাজধানীর ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটিতে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, সরকারের এই উদ্যোগ নিয়ে বিভিন্ন মহলে সমালোচনা হচ্ছে। কিন্তু সরকার সেই সব সমালোচনায় কান না দিয়ে রামপাল কয়লা বিদ্যুৎকেন্দ্র করবেই।

উন্নত বিশ্বের যেসব দেশ রামপাল প্রকল্পের সমালোচনা করছে তারা কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎ দিয়েই আজ উন্নত হয়েছে বলেও অভিযোগ করেন মন্ত্রী।

সুইজারল্যান্ডের দাভোসে যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট পরিবেশ আন্দোলনকর্মী গোর রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র এবং সুন্দরবন প্রসঙ্গে যে প্রশ্ন তুলেছেন, তার জবাবে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ কড়া সমালোচনা করেছেন।

তিনি বলেন, আল গোর তার জায়গা থেকে প্রশ্ন তুলেছেন। কিন্তু বাস্তবতা ভিন্ন। এ দেশ আমাদের। আমরা পরিবেশ এবং উন্নয়ন ভালো বুঝি। প্রধানমন্ত্রী সঠিক উত্তরই দিয়েছেন।

তিনি বলেন, পরিবেশবিদরা দেখেছেন এই বিদ্যুৎকেন্দ্র সুন্দরবনের কোনো ক্ষতি করবে না।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, সুন্দরবনের কোনো ক্ষতি হবে না রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে। সর্বাধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করে এটি নির্মাণ করা হচ্ছে। অনেকেই পদ্মাসেতু নির্মাণের সমালোচন করেছিলেন। তারা বলেছিলেন সেতু নির্মাণ হলে ইলিশের চলাচল ব্যহত হবে। এখন তারা চুপ মেরে গেছেন। পদ্মাসেতু নির্মাণ হচ্ছে।

যেকোনো কাজের সমালোচনা থাকবেই। তাই বলে উন্নয়ন থেমে থাকবে না। আমরা পরিবেশের সর্বনিম্ন ক্ষতি করে উন্নয়নের পক্ষে।

আজম/টি