ফেসবুকে মেয়ের পোস্ট, বাবা গুনলেন ৮০ হাজার ডলারের জরিমানা

0
72

facebook-postপার্তিক স্নে। বয়স ৬৯ বছর। ফ্লোরিডার বেসরকারি মিয়ামি স্কুলের সাবেক প্রধান শিক্ষক তিনি। ২০১১ সালের নভেম্বর মাসে চাকরি বাবদ স্কুলের সাথে তার চুক্তি হয় ৮০ হজার ডলারের।  কর্তৃপক্ষ ৬০ হাজার ডলার দিতে রাজি হন। কিন্তু শর্ত ছিল চুক্তির বিষয়টি তিনি গোপন রাখবেন। সেই শর্তেও মাথা নাড়ান স্নে।

কিন্তু বিবাদ ঘটলো তখনি, যখন এই তথ্যটি স্নের স্কুলপড়ুয়া মেয়ে ফেসবুকে ফাঁস করে দেন। ফলে স্কুল কর্তৃপক্ষের কাছে উল্টো ৮০ হাজার টাকা জরিমানা গুণতে হলো স্নে পরিবারকে।

স্নে কন্যা তার ফেসবুক পোস্টে লিখেছিলেন, গ্যালিভারের সাথে চুক্তিতে বাবা স্নেই জয়লাভ করেছেন। স্কুলকর্তৃপক্ষ তাকে ইউরোপে গ্রীষ্মের ছুটি কাটানোর খরচ বহন করছেন, ‘সাক ইট’।

সোমবার সিএনএন-র এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ফেসবুকে মেয়েটির ১২০০ ফলোয়ার ছিল। যাদের অধিকাংশই বর্তমানে গ্যালিভার স্কুলে পড়াশোনা করছেন। এ তথ্য প্রকাশের কয়েকদিন পরই গ্যালিভার কর্তৃপক্ষ স্নের বাড়িতে একটি চিঠি পাঠান। এতে বলা হয়, স্নে তাদের শর্ত রাখতে ব্যর্থ হয়েছেন। পরবর্তী কালে তারা স্নের বিরুদ্ধে মামলা করেন। এরপর আদালত শর্ত ভঙ্গের দায়ে স্নেকে ৮০ হাজার ডলার জরিমানা করে।

প্রসঙ্গত, আদালতে মেয়েটি তার ফেসবুকে পোস্ট দেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করেন।

এস রহমান/