রাজশাহীর চারঘাটে ভোটের আমেজ

0
59
rajshahi

rajshahiরাজশাহীর চারঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে উপজেলা জুড়ে ভোটের আমেজ চলছে। ইতোমধ্যে পোস্টারে পোস্টারে ছেয়ে গেছে চারঘাটের হাট বাজার, অলিগলি ও পাড়া-মহল্লা। বিভিন্ন শ্লোগানে মুখোরিত হয়ে উঠেছে চারঘাট এলাকা। লিফলেট হাতে বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট প্রার্থনা করছেন প্রার্থীরা।

উৎসবমুখর পরিবেশের মধ্য দিয়ে মধ্যরাত পর্যন্ত রাস্তার মোড়ে মোড়ে চলছে নির্বাচনী আড্ডা-বৈঠক। একই সঙ্গে হাটে-মাঠে, পথে-প্রান্তরে আর হোটেলে রেস্তোরায় লোকমুখে প্রার্থীদের পক্ষে-বিপক্ষে তর্ক-বির্তকের ঝড় উঠেছে।

পুরো উপজেলায় চারিদিকে সাদাকালো পোস্টারের ছড়াছড়ি চোখে পড়ার মতো। এছাড়া, উপজেলার গ্রামঞ্চলগুলোতে র্নিবাচন নিয়ে উৎসাহ উদ্দীপনার কমতি নেই ভোটদের মধ্যে। নির্বাচনী প্রচারণায় মাইকের ভেসে আসছে ‘যোগ্য প্রার্থী বাছিয়া, ভোট দিবেন ঠাসিয়া।’ চলছে প্রার্থীদের নামে প্রশংসার পাশাপাশি প্রতীক বলে ভোট প্রার্থনা। পাশাপাশি ভোট প্রার্থনার জন্য ভোটদের বাড়ি বাড়ি ছুটছেন প্রার্থীরা।

এ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে একক প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক ফখরূল ইসলাম (আনারস) এবং জাতীয় পার্টির একক প্রার্থী ইকবাল হোসেন (কাপ-পিরিচ)। মাঠে থাকলেও বিএনপির নেতৃত্বাধীন ১৯ দলীয় জোটের প্রার্থী বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য উপজেলা বিএনপির সভাপতি আবু সাঈদ চাঁদ (মটর সাইকেল) প্রতীক কারাগারে আটক থাকায় তার পক্ষে মাঠে নেমেছেন তার ছেলে রাকিবুল হাসান অলিভ।

প্রতীক সম্বলিত লিফলেট হাতে আওয়ামী লীগের একক প্রার্থী ফখরুল ইসলাম নেতা-কর্মী সমর্থকদের নিয়ে উপজেলার ভোটাদের দ্বারে দ্বারে গিয়ে ভোট প্রর্থনা করছেন। সেই সাথে দিচ্ছেন উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি। অবহেলিত চারঘাট উপজেলাকে মডেল উপজেলা হিসেবে গড়ে তুলতে চাইছেন সকলের সহযোগিতায়। তার পক্ষে ইতোমধ্যে মাঠে নেমেছেন আওয়ামী লীগসহ অঙ্গ সংগঠনের নেতা-কর্মীরা।

এদিকে, জাতীয় পার্টির প্রার্থী ইকবাল হোসেনও মাঠে নেমেছেন বেশ জোরেসোরে। তবে, বিএনপির নেতৃত্বাধীন ১৯ দলীয় প্রার্থী আবু সাঈদ চাদ কারাগারে আটক থাকলেও তার পক্ষে ভোট প্রার্থনায় ব্যস্ত সময় পার করছেন তার ছেলে অলিভ ও ১৯ দলীয় জোটের নেতা-কর্মীরা। উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আবু সাঈদের অসমাপ্ত কাজ সমাপ্ত করতে আরও একটি বার সুযোগ দেওয়ার জন্য ভোটারদের নিকট ভোট প্রার্থনা করছেন।

চেয়ারম্যান প্রার্থীরা ছাড়াও ভোটের মাঠ গরম রাখতে ছুটে চলেছেন পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান ও নারী ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীরা।