নওগাঁর তিনটিতে বিএনপি ও তিনটিতে আ’লীগের পার্থী জয়ী

0
32

Naogaongউপজেলা নির্বাচনে দ্বিতীয় পর্যায়ে নওগাঁ সদরসহ ৬ উপজেলায় নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৩ টিতে বিএনপির প্রার্থী ও ৩ টিতে আ‘লীগের প্রার্থী নির্বাচিত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার রাতে সহকারী রিটার্নিং অফিসার বেসরকারী ভাবে এ ফলাফল ঘোষণা করেন।

নওগাঁ জেলা নির্বাচন অফিস সূত্র জানায়, নওগাঁ সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে বিএনপির আবু বক্কর সিদ্দিক নান্নু (আনারস) ৯০ হাজার ৮৩১ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আ’লীগের পারভীন আকতার (মোটরসাইকেল) পেয়েছেন ৪৯ হাজার ৫৪৫ ভোট। ভাইস চেয়ারম্যান পদে জামায়াতের আবু সাদাত মো. সায়েম (টিউবওয়েল) ৫৪ হাজার ২৫ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আ‘লীগের মামুনুজ্জামান মামুন (তালা) পেয়েছেন ৫০ হাজার ৩১৮ ভোট। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপি’র শবনব মোস্তারী কলি (কলস) ৮৮ হাজার ৫১৬ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আ’লীগের নাতিসা আলম (হাঁস) পেয়েছেন ৪৮ হাজার ৮১১ ভোট।

বদলগাছীতে উপজেলা চেয়ারম্যান পদে বিএনপি’র মোস্তফা অলি আহমেদ রুমি চৌধুরী (ঘোড়া) ৪৮ হাজার ৫০২ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আ’লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সামসুল আলম (টেলিফোন) পেয়েছেন ২০ হাজার ৬১৫ ভোট। ভাইস চেয়ারম্যান পদে জামায়াতের ফজলুল হক (বৈদ্যুতিক বাল্ব) ৪৮ হাজার ভোট পেয়ে এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপি’র শাম্মী আকতার ৫৪ হাজার ৮০৭ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন।

পত্নীতলায় চেয়ারম্যান পদে বিএনপি’র মো. আব্দুল হামিদ (ঘোড়া) ৬১ হাজার ৩৪৬ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আ’লীগের আলহাজ্ব আব্দুল গাফ্ফার (কাপ-পিরিচ) পেয়েছেন ৫৩ হাজার ৪৯৫ ভোট। ভাইস চেয়ারম্যান পদে জামায়াতের মো. হাবিবুর রহমান (তালা) ৭০ হাজার ৯৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আ’লীগের মো. আজাদ রহমান (উড়োজাহাজ) পেয়েছেন ৫২ হাজার ৭৬৭ ভোট। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপি’র মরিয়ম বেগম শেফা (হাঁস) ৬৮ হাজার ২৬৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আ’লীগের জেসমিন আক্তার (কলস) পেয়েছেন ৫১ হাজার ৪০৬ ভোট।

আত্রাই উপজেলায় আ’লীগের এবাদুর রহমান (মোটরসাইকেল) ৪১ হাজার ৯৩০  ভোটে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি বিএনপির রেজাউল ইসলাম (আনারস) পেয়েছেন ৪১ হাজার ৭০১ ভোট। ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপির একরামুল বারী (টিউবওয়েল) ৫২ হাজার ৬৩২ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আ’লীগের গোলাম মোস্তফা চৌধুরী বাদল (তালা) পেয়েছেন ৩৬ হাজার ১২ ভোট। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে আ’লীগের মমতাজ বেগম (হাঁস) ৫৬ হাজার ৭০  ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি বিএনপির শামীম আরা (ফুটবল) পেয়েছেন ৩৫ হাজার ৪৬ ভোট।

সাপাহার উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আ’লীগের শামসুল আলম শাহ চৌধুরী (আনারস) ৩৭ হাজার ৬১১ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি বিএনপির আব্দুন নূর (মটরসাইকেল) পেয়েছেন ৩১ হাজার ৮১২ ভোট। ভাইস চেয়ারম্যান পদে আ’লীগের আব্দুল ওয়াহেদ (উড়োজাহাজ) ৩১ হাজার ৬৩১ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি  বিএনপির শফিকুল ইসলাম (তালা) পেয়েছেন ৩০ হাজার ৫৭৩ ভোট। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপির মোরশেদা পারভীন (হাঁস) ৪৪ হাজার ৫৪৯ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী  আ’লীগের নার্গিস সরকার (কলস) পেয়েছেন ৩৪  হাজার ৬৯২ ভোট।

নিয়ামতপুর উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আ’লীগের আলহাজ এনামুল হক (আনারস) ৬০ হাজার ৯১৬ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি বিএনপির আলহাজ ছাদরুল আমিন চৌধুরীর (দোয়াত-কলম) পেয়েছেন ৫৬ হাজার ২০১ ভোট। ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপির লিয়াকত আলী (টিয়াপাখি) ৪৭ হাজার ১৪ ভোট পেয়ে এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী মনোয়ারা খাতুন ৭৪ হাজার ২৫ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। জেলা রিটানিং অফিসার ও নওগাঁর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক জাহাঙ্গীর আলম সাংবাদিকদের জানান, বৃহস্পতিবার জেলার ৬ উপজেলায় শান্তিপূর্নভাবে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। কোথাও কোন অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি। সাকি/