উপজেলা নির্বাচন বাতিলের দাবিতে ঝিনাইদহে আ. লীগের বিক্ষোভ মিছিল

0
31
jhinaidoho
ঝিনাইদহ ম্যাপ

jhinaidohoঝিনাইদহ সদর উপজেলার নির্বাচন বাতিল করে পুন:নির্বাচনের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে জেলা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। একই সাথে প্রশাসনের বিরুদ্ধে পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ এনে ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসকসহ ৪ কর্মকর্তার অপসারণ দাবি করেছে তারা।

রোববার বিকালে শহরের এইচএসএস সড়কে জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয় থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। মিছিলে জেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা অংশ নেয়। মিছিলটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে এসে এক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন ঝিনাইদহ সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহ মো. ওয়াজেদ আলী। এতে বক্তব্য রাখেন- আওয়ামী লীগ নেতা আসাদুজ্জামান, অ্যাডভোকেট লিয়াকত আলী, সালমা ইসলাম, ইউপি চেয়ারম্যন রবিউল ইসলাম রবি, খোন্দকার ফারুকুজ্জামান ফরিদ প্রমুখ।

সমাবেশে দলীয় নেতা-কর্মীরা অভিযোগ করেন- ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসক শফিকুল ইসলাম, রিটার্নিং অফিসার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শেখ রফিকুল ইসলাম, ইউএনও জুলকার নায়ন, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মামুন আল ফারুক মোটা অঙ্কের অর্থের বিনিময়ে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী আবদুল আলীমের পক্ষে কাজ করেছেন। প্রশাসনের সহযোগিতায় বিএনপি-জামায়াত ক্যাডাররা সংখ্যালঘু ভোটারদের কেন্দ্রে যেতে বাধা দিয়ে দেশ ত্যাগের হুমকি দিয়েছে। এ কারণে ভয়ে ভোটাররা ভোটকেন্দ্রে যেতে পারেননি। ভোটের দিন দোগাছি ইউপি চেয়ারম্যান ফয়েজ উল্লাহ ফয়েজকে ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয় থেকে আটক করে তিন মাসের কারাদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করে ভ্রাম্যমাণ আদালত। এছাড়া বিভিন্ন এলাকায় আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদের ওপর গুলিবর্ষণ ও দড়ি দিয়ে বেঁধে রাখা হয়। প্রশাসনের কর্মকর্তারা হ্যান্ডমাইকে বিএনপি-জামায়াতের প্রার্থীকে ভোট দিতে ভোটারদের নির্দেশ দেন।

এ সময় নেতারা অবিলম্বে উপজেলা নির্বাচন বাতিল ও দোষী ৪ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে আইনগত বাবস্থা নেওয়ার দাবি জানান। না হলে পরবর্তীতে আরও বড় ধরণের কর্মসূচি ঘোষণা দেওয়া হবে বলে তারা হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন।

কেএফ