শেষ বিকেলে জমছে মেলা

OLYMPUS DIGITAL CAMERA

OLYMPUS DIGITAL CAMERAসকাল বেলায় বই মেলায় তেমন ভিড় দেখা না গেলেও বেলা বাড়ার সাথে সাথে ভাড়ছে দর্শনার্থী ও পাঠকের সংখ্যা। সকাল ৮টা থেকে বই মেলায় দোকানগুলো খুললেও খুব বেশি ভিড় হয়নি প্রথম প্রহরে। দুপুরের দিকে দর্শনার্থী এসেছে ধীর গতিতে। তবে শেষে বিকেলে একুশের ভিড় বই মেলায় এসে পড়েছে।

শহীদ মিনারে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে অনেকে পরিবার-পরিজন নিয়ে মেলায় ঢুঁ মারছেন। পাশাপাশি তরুণ লেখক-পাঠক-দর্শনার্থীরাও আসছেন। তাদের মধ্যে মেয়েদের পরনে ছিল সাদা-কালো শাড়ি আর ছেলেদের পরনে ছিল পাঞ্জাবি। অনেকের হাতে একুশের ওপর লেখা অনেক বইও শোভা পাচ্ছিল।

গত শুক্রবারের মেলায় বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণে পা ফেলার জায়গা ছিল না। বিশাল লাইন ধরে ঢুকতে দেখা গেছে। তবে এই শুক্রবারে বাংলা একাডেমি সকালের দিকে ছিল পুরোই ফাঁকা। কিছু কিছু দর্শনার্থী বাংলা একাডেমিতে ঘুরে এসেছেন। তবে এ নিয়ে লেখক পাঠক ও দর্শনার্থীদের মধ্যে মিশ্র প্রতিক্রিয়াও দেখা গেছে।

তবে আজ মেলায় বাংলা একাডেমির চেয়ে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে লোকজনের ভিড় বেশি লক্ষ করা গেছে। পাঠকের চাহিদার সব বই সেখানে থাকায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ভিড় বেশি হয়েছে। শহীদ মিনারে থেকে শুরু করে জাফর ইকবাল, আনিসুল হক, ইমদাদুল হক মিলনের মতো সব বড় লেখকের বই সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে পাওয়া যাচ্ছে।

অনেকে লাইন ধরে বাংলা একাডেমিতে ঢুকে হুমায়ূন আহমেদের বই কেনার জন্য, যখন শুনে তার বই এখানে নেই, তারা কষ্টের দীর্ঘশ্বাস ছেড়ে আবার ছুটে যান সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে। সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে হুমায়ূন আহমেদের বইয়ের স্টলে পাঠকের খুব ভিড় দেখা গেছে।

এসএস/কেএফ