মঙ্গলে বসবাসে ফতোয়া

Muslim leaders issue a fatwa against anyone living on MARS

Muslim leaders issue a fatwa against anyone living on MARSএবার মহাকাশের লাল গ্রহ মঙ্গলে বসবাসে ফতোয়া জারি হয়েছে। আরব আমিরাতের সরকারি একটি সংস্থা এ ফতোয়া দিয়েছে। এতে মঙ্গলগ্রহে বসবাসের পরিকল্পনাকে আন-ইসলামিক বলে দাবি করা হয়েছে। খবর খালিজ টাইমস ও ডেইলি মেইলের।

ফতোয়াদাতা বলেছে, মঙ্গলগ্রহ বসবাসের যোগ্য নয়। তাই সেখানে যাওয়া আত্মহত্যার সামিল। ইসলাম ধর্মে আত্মহত্যাকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

মারস ওয়ান প্রকল্পের পক্ষ থেকে ২০২৫ সাল নাগাদ মঙ্গলগ্রহে বসবাসের উদ্দেশ্য যাত্রা করার ঘোষণার পর পরই আলোচিত ফতোয়া জারি হয়। আমিরাতের জেনারেল অথরিটি অব ইসলামিক অ্যাফেয়ার্স অ্যান্ড এনডাওমেন্ট এ ফতোয়া জারি করে।

ফতোয়ায় বলা হয়, মঙ্গল যাত্রা হবে ওয়ানওয়ে। সেখান থেকে ফেরা যাবে না। আবার চরম প্রতিকূল পরিবেশে বেঁচে থাকাও সম্ভব হবে না। তাই এটি হবে স্বেচ্ছায় মৃত্যুর পথ বেছে নেওয়ার সামিল। কিন্ত ইসলাম স্বেচ্ছা মৃত্যু সমর্থন করে না। অন্যান্য ধর্মেও একই অবস্থান।

২০০৮ সালে সংস্থাটি প্রতিষ্ঠার পর থেকে এখন পর্যন্ত ২০ লাখ ফতোয়া জারি করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

শত কোটি ডলারের মারস ওয়ান প্রকল্পে ২০২৫ সাল নাগাদ মঙ্গলে বসবাসের পরিকল্পনা করছে। ইতোমধ্যে এ প্রকল্পের আওতায় মঙ্গলে যাওয়ার জন্য ৫০০ অ্যারাবিয়ানসহ ২ লাখ মানুষ আবেদন করেছে। গত ডিসেম্বর মাসে তাদের মধ্য থেকে ১ হাজার ৫৮ জনকে ওই উচ্চাভিলাসী প্রকল্পের জন্য প্রাথমিকভাবে বাছাই করা হয়।