‘ঘরের শত্রু বিভীষণ’

greet barrier reef

greet barrier reefমানুষ নয়, রাক্ষসের কবলে পড়ে হারিয়ে যেতে বসেছে গ্রেট বেরিয়ার রিফ। এই রাক্ষস দূরের বা বাইরের কেউ নয়, গ্রেট বেরিয়ারের ঘরের অধিবাসী মুকুট কাঁটা নামের এক ধরনের তারা মাছ। অস্ট্রেলিয়া’স ইন্সটিটিউট অব মেরিন সাইন্সের (এইমস) এক দল গবেষক জানিয়েছেন এই তথ্য। খবর ডেইলি মেইলের।

অস্ট্রেলিয়ার কুইনসল্যান্ডে অবস্থিত গ্রেট বেরিয়ার রিফ পৃথিবীর  বৃহত্তম প্রবাল ভান্ডার। মার্কিন সংবাদ মাধ্যম সিএনএনের মতে পৃথিবীর প্রাকৃতিক সপ্তম আশ্চর্যের একটি এই গ্রেট বেরিয়ার রিফ।

অথচ মাত্র ২৭ বছরের ব্যবধানে গ্রেট বেরিয়ারের প্রবালের পরিমাণ প্রায় অর্ধেক কমে এসেছে। প্রবালের এই বিলুপ্তির পিছনে অতিরিক্ত কার্বন নিঃসরণের কারণে সৃষ্ট বৈশ্বিক উষ্ণতাকেই দায়ী করছিলেন পরিবেশবাদীরা।

সম্প্রতি এইমসের গবেষক দল জানায়, মুকুট কাঁটা ৪২ শতাংশ প্রবাল বিলুপ্তির জন্য দায়ী। তারা আরও জানান, একটি মুকুট কাঁটা প্রতিবছর ১০ বর্গ মিটার পরিমাণের প্রবাল খেয়ে ফেলতে পারে।

তাছাড়াও এই তারা মাছ বছরে ৫০ লাখ থেকে ২ কোটি পর্যন্ত ডিম পাড়তে পারে বলে জানিয়েছেন তারা। তাদের আশঙ্কা, একবার এই প্রজাতির তারা মাছেরা যদি গ্রেট বেরিয়ার রিফকে পৃথিবী থেকে মুছে দিতে চায়, তাহলে খুব অল্প দিনেই তা সম্ভব হয়ে উঠতে পারে।