পীরগাছায় প্রায় দেড় মাস পর দুই জামায়াত নেতার লাশ কবর থেকে উত্তোলন

0
217
Rangpur Map
রংপুর মানচিত্র

rangpur-map‘৫ই জানুয়ারীর নির্বাচন’ বন্ধের আন্দোলন করতে গিয়ে রংপুর পীরগাছার দেউতিতে পুলিশের গুলিতে নিহত জামায়াত নেতা মিরাজুল ইসলাম ও শিবির নেতা হাদিউজ্জামান হাদির লাশ গতকাল শনিবার ঘটনার ১ মাস ১০ দিন পর শনিবার দুপুরে কবর থেকে ময়না তদন্তের জন্য উত্তোলন করা হয়েছে।

পীরগাছা থানার অফিসার ইনচার্জ মকবুল হোসেন জানান, আদালতের নির্দেশে  লাশ দুটি শনিবার দুপুরে কবর থেকে উত্তোলন করা হয়। পরে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসাপাতালের মর্গে ময়না তদন্ত শেষে আবারও দাফন করা হবে । তিনি জানান, লাশদুটি ময়না তদন্ত ছাড়াই দাফন করায় কিভাবে মৃত্যু হয়েছিল বিষয়টি স্পষ্ট ছিল না সেকারণেই আদালত লাশদুটির ময়না তদন্তের নির্দেশ দেয়।

এদিকে যেকোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে লাশ উত্তোলনের সময় ম্যাজিষ্ট্রেট হুমায়ুনের উপস্থিতে এএসপি সার্কেল হুমায়ুন কবিরের নেতৃত্বে বিপুল পরিমাণ পুলিশ মোতায়েন করা হয় ওই দুই গ্রামে। এতে জনমনে আতংক ছড়িয়ে পড়ে। তবে লাশ উত্তোলন কালে এলাকার কোন লোকজন বাধা দেয়নি। বরঞ্চ তারা এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার দাবী করেছেন। ময়নাতদন্তের নামে যেন প্রকৃত অপরাধীরা পার না পায় সেটিও নিশ্চিত করার দাবি তুলেছেন তারা।

এই দুটি হত্যাকান্ডের ঘটনায় পুলিশ এবং পরিবারের পক্ষ থেকে দুটি পৃথক মামলা দায়ের করা হয়।

প্রসঙ্গত রংপুরের পীরগাছার পারুল ইউনিয়নের দেউতি হাইস্কুল মাঠে ৫ই জানুয়ারী রাতে বিক্ষুব্ধ জনতা ব্যালট পুড়িয়ে দিলে পুলিশের গুলিতে ঘটনাস্থলে নিহত হন জামায়াতের ওয়ার্ড নেতা নেতা মিরাজুল ইসলাম (৪২) ও ইসলামী ছাত্রশিবিরের উপশাখা সভাপতি হাদিউজ্জামান হাদি (১৬)।

সাকি/