সিনাবাংয়ের পর কেলুদ: অগ্ন্যুৎপাতে বাস্তুহারা হাজারো মানুষ

0
84
mount kelud erupts

mount kelud erupts মাত্র এক মাসের ব্যবধানে দুই দু’টি আগ্নেয়গিরি জেগে উঠেছে দ্বীপ-রাষ্ট্র ইন্দোনেশিয়ায়। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে দেশটির পূর্ব জাভায় মাউন্ট কেলুদ আগ্নেয়গিরিতে অগ্ন্যুতপাত ঘটেছে। ছাই ও ধোঁয়ায় ঢেকে গেছে বিস্তীর্ণ এলাকা। বাদ পড়েনি ১৩০ কিলোমিটার দূরের সুরাবায়া শহরও।

ধুলো, ধোঁয়ায় ঢাকা পড়ে গোটা শহর। সোলো, সুরাবায়া এবং যোগাকার্তা এই তিনটি শহরে দৃশ্যমানতা কমে যাওয়ায় বন্ধ রাখা হয়েছে বিমান চলাচল। অগ্ন্যুত্‍পাতের সতর্কবার্তা পেয়ে নিকটবর্তী ছত্রিশটি গ্রামের প্রায় দু’লাখ মানুষের কাছে সরে যাওয়ার আবেদন জানায় প্রশাসন।
এর আগে গত মাসের শেষ সপ্তাহে ইন্দোনেশিয়ার উত্তর সুমাত্রা দ্বীপে মাউন্ট সিনাবাং আগ্নেয়গিরিতে অগ্ন্যুৎপাত হয়। এতে ১২ ব্যক্তি নিহত হয়।
শনিবার সকালে সুমাত্রার মাউন্ট সিনাবাং আগ্নেয়গিরি থেকে এ অগ্ন্যুৎপাত হয়। গরম বাতাস, ছাই ও ছোট-মাঝারী পাথরের টুকরো প্রায় দুই কিলোমিটার উপরে উঠে চারদিকে ছড়িয়ে পড়ে। বাধ্য হয়ে সরকার ওই এলাকায় ৫টি গ্রাম থেকে কমপক্ষে সাড়ে ১২ হাজার বাসিন্দাকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নেয়। সুমাত্রার ১৬টি স্থানে অস্থায়ী ক্যাম্প স্থাপন করে দেশটির দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়। জাকার্তার আগ্নেয়গিরি বিশেষজ্ঞরা জানান, উদগীরণে আকাশে সবচেয়ে বেশি প্রায় ৫ হাজার মিটার উচ্চতায় পৌঁছে যায় ছাইমেঘ। ওই এলাকার পাশ দিয়ে বিমান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি করে দেশটির বিমান চলাচল মন্ত্রণালয়।