গভীর আমাজনে ফুটন্ত নদী!

অর্থসূচক ডেস্ক

0
232

রূপকথার এক নদী, যেখানে গরম পানিতে পড়ে সিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় পশুপাখির। হাজার বছর ধরে মানুষের মুখে মুখে সেই ফুটন্ত পানির নদীর গল্প। রূপকথায় আছে, স্প্যানিশ বিজেতারা স্বর্ণের খোঁজে আমাজনের গহীনে গিয়ে ফিরে এসে বিষাক্ত পানি, মানুষ খেকো সাপ আর টগবগে ফুটন্ত নদীর গল্প শোনাতেন।

peru-boilingriver-xlargeরূপকথার সেই নদীর সন্ধান মিললো এবার পেরুতে। নদীটি খুঁজে পেয়েছেন পেরুর ভূতত্ত্ব বিজ্ঞানী আন্দ্রে রুজো।

গভীর আমাজন জঙ্গলের রহস্যময় এই নদীর পানির গড় তাপমাত্রা প্রায় ৮৬ ডিগ্রী সেলসিয়াস। পানির এতো তাপমাত্রা দেখে আন্দ্রে রুজোর মনে প্রশ্ন জাগে এমন নদী রূপকথায় এলো কোত্থেকে ?

উত্তর দেন রুজোর মা। জানান, তিনি ও তার বোন সাঁতার কেটেছেন এই নদীতে। বছর পাঁচেক আগে খালাকে নিয়ে রওনা দেন রুজো। দেখে আসেন রহস্যময় সেই নদী।

Eru boiling-river-3নদীটি চওড়ায় ২৫ মিটার, গভীরতা ছয় মিটার। গরম পানির প্রবাহ আছে সোয়া ছয় কিলোমিটার জুড়ে। আর নিকটতম আগ্নেয়গিরি সাতশো কিলোমিটার দূরে। তবু পানির তাপমাত্রা ৮৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। রুজোর দাবি, বিশ্বে এমন নদী এই একটাই। যার স্থানীয় নাম শানায়-তিমপিশকা অর্থাৎ সূর্যের তাপে টগবগে।

গবেষণায় রুজো দেখেছেন বৃষ্টির মতো একটি ঝর্ণার পানি এই নদীতে পড়ে প্রবাহিত হচ্ছে উল্টো দিকে। তাতেই প্রকাণ্ড এক জলবিদ্যুৎ তৈরির মতো করে পৃথিবীর ভূ-তাপীয় শক্তিতে গরম হয়ে উঠছে পানি। এমন প্রাকৃতিক কাণ্ড আর কোথাও মেলেনি এখনও।

টি