রাজশাহীতে চলছে নির্বাচনী আমেজ

0
29
upojela nirbachon

upojela nirbachonরাজশাহীর মোহনপুর উপজেলা পরিষদে নির্বাচন আর মাত্র সপ্তাহ খানেক বাকি। নির্বাচনে নিজেকে জয়ী করতে পুরোদমে মাঠে নেমেছেন প্রার্থীরা। নির্বাচনী প্রচারণায় মাইকের শব্দে মুখরিত হচ্ছে মোহনপুরের প্রতিটি অঞ্চল। প্রার্থীদের সাদা কালো পোস্টারে ছেয়ে গেছে পুরো এলাকা।

জাতীয় সংসদ নির্বাচনে রাজশাহীতে সাধারণ ভোটারদের তেমন কোনো আগ্রহ না থাকালেও উপজেলা নির্বাচনে হারানো সে নির্বাচনী আমেজ ফিরে এসেছে। এ উপজেলায় আওয়ামী লীগের পাশাপাশি বিএনপি, জামায়াত ও জাতীয় পার্টি নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে। ফলে বদলে গেছে উপজেলার রাজনীতির মাঠের চিত্র।

সরেজমিনে দেখা গেছে, মোহনপুরের সর্বত্র উৎসবমুখর পরিবেশে নির্বাচনী প্রচারণা চলে। দিন থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত রাস্তার মোড়ে মোড়ে চলে নির্বাচনী আড্ডা-বৈঠক। একই সঙ্গে হাটে-মাঠে, পথে-প্রান্তরে আর হোটেল রেস্তরাঁয় লোকমুখে প্রার্থীদের পক্ষে-বিপক্ষে তর্ক-বির্তকের ঝড় উঠে।

পুরো উপজেলায় চারদিকে সাদাকালো পোস্টারের ছড়াছড়ি চোখে পড়লো। উপজেলা পরিষদের গেটে দুখু মিয়ার ছোট্র একটি চায়ের দোকান। দুই কাপ চায়ের কথা বলে ভেতরে বসতেই কানে ভেসে এলো আশেপাশে বসে ও দাঁড়িয়ে থাকা মানুষদের মাঝে নির্বাচনী আলোচনা। কেউ একজনকে এগিয়ে রাখে তো অপরজন অন্যদের এগিয়ে রাখে। পরিবেশ দেখে মনে হচ্ছে জমে উঠছে নির্বাচনী প্রচারণা।

মোহনপুর উপজেলা সদরে ফটোকপি দোকানদার জিল্লু রহমান জানান, প্রতীক বরাদ্দ দেওয়ার পরে প্রার্থীরা পুরোদমে প্রচার প্রচারণায় নেমে পড়েছে। তেমনি ভোটারদের মধ্যেও উৎসাহ উদ্দীপনা ছড়িয়ে পড়েছে।

এবারের নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ সমর্থিত একক প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম (দোয়াত-কলম) এবং বিএনপি সমর্থিত একক প্রার্থী উপজেলা বিএনপির সভাপতি অধ্যাপক আবদুস সামাদ (আনারস) প্রতীক নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু ও নির্বাচনের মূল আকর্ষণই তারা। অপরদিকে বিএনপি সমর্থিত অধ্যাপক আবদুস সামাদকে বিজয়ী করতে ঐক্যবদ্ধভাবে মাঠে নেমেছেন বিএনপি ও জামায়াত নেতাকর্মীরা। সবমিলিয়ে গরম হতে শুরু করেছে ভোটের মাঠ।

এবারে এ উপজেলা থেকে ভাইস চেয়ারম্যান পদে উপজেলা জামায়াতের সেক্রেটারি মাওলানা আবুল কালাম (টিউবওয়েল) ও উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম (বই) নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। এছাড়া নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে মহিলা আওয়ামী লীগের জোসনা খাতুন (ফুটবল) ও জাতীয় পার্টির বানেছা বেগম (কলস) নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন।

উল্লেখ্য, তফসিল অনুযায়ী, আগামি ১৯ ফেব্রুয়ারি মোহনপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

কেএফ