ছেলে হারানো বাবার অনুরোধ রাখলো ফেসবুক

0
40
facebook

facebookলুকব্যাক ভিডিওতে  মৃত ছেলের সব ছবি দেখতে পেয়ে ফেসবুকের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন মিশরের জন বার্লিন। ২০১২ সালে মৃত ছেলে জেসির ৬০ সেকেন্ডের লুকব্যাক ভিডিও দেখে তিনি এ কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। খবর এবিসি নিউজের।

প্রতিবেদনে বলা হয়, বার্লিনের পরিবার কিছুতেই জেসির ফেসবুক একাউন্টে ঢুকতে পারছিল না। এমনকি ইউটিউবের কাছেও বার্লিন তার ছেলের শেয়ার করা, লাইক ও পোস্ট করা ব্যক্তিগত বিশেষ কিছু ছবি দেখার অনুরোধ করেছিলেন। কিন্তু ফল হয়নি তাতে। গত বৃহস্পতিবার তার আশা পুরণ করেছে ফেসবুক।

ফেসবুক কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তারা বার্লিনের অনুরোধ রেখেছে। তাকে এই লুকব্যাক ভিডিও দেখতে এবং ভিডিও শেয়ার করতে কেবল একদিন সুযোগ দেওয়া হয়েছে। প্রকৃতপক্ষে যেসব ব্যবহারকারী ফেসবুক বন্ধ করে দেয় কিংবা যারা মারা যায় তাদের একাউন্টে ঢোকার অনুমতি তারা দেয় না। শুধু বাবার অনুরোধ রাখতেই এই সুবিধা দিয়েছে তারা।

ফেসবুককে ধন্যবাদ জানিয়ে শুক্রবার বার্লিন তার পেজে লিখেছেন, তোমাকে (ফেসবুক) ছাড়া আমরা কখনও আমাদের মৃত ছেলের ভিডিও দেখতে পেতাম না। এছাড়া যারা আমার ছেলের ছবি, পোস্ট শেয়ার করেছেন তাদেরকেও  ধন্যবাদ জানান তিনি।

তিনি বলেন, ফেসবুক তোমাকে হৃদয়ের অন্ত:স্থল থেকে ধন্যবাদ। তুমি বেঁচে থাকো লাখো বছর।

মূলত, ৪ ফেব্রুয়ারি ১০ ম জন্মদিন উপলক্ষে ফেসবুক তার প্রথম পৃষ্ঠায় (লগ-ইন পেজ) রেখেছিল একটা ভিডিও। পেজের বাম পাশেই এক মিনিট এক সেকেন্ডের ভিডিওটিতে ১০ বছর পূর্তির বিষয়টি তুলে ধরা হয়েছিল। আর ফেসবুকে ব্যবহারকারীর সবকিছু এক নজরে দেখতে ব্যবহারকারীদের জন্য লুকব্যাক নামের এক চমক।

সেই চমক দেখতে ফেসবুকের জন্মদিনে বাবাও তার ছেলের লুকব্যাক দেখতে চেয়েছিলেন। কিন্তু পাসওয়ার্ড না জানার কারনে সেটা সম্ভব হয়ে উঠছিল না।

এস রহমান/