ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় রেললাইনে নাশকতার দায়ে ২৫০ জনের বিরুদ্ধে মামলা

0
100
টানা ৭১ ঘণ্টার অবরোধ কর্মসূচির প্রথম দিনে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ঢাকা-চট্টগ্রাম-সিলেট রুটে রেললাইন উৎপাটন, চট্টলা ট্রেনে আগুন-ভাঙচুর এবং ইমামবাড়ি রেল স্টেশন মাস্টারকে অবরুদ্ধ করে রাখার দায়ে আখাউড়া রেলওয়ে থানায় পৃথক দুই মামলা হয়েছে। এসব মামলায় স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানকে প্রধান আসামী করে ১৪ জনের নাম উল্লেখ করা হয়। এছাড়া ২৫০ জনকে অজ্ঞাতনামা আসামী করা হয়েছে। এ পর্যন্ত পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছেন আটজন।

আখাউড়া রেলওয়ে থানা সূত্রে জানাগেছে, ১৮ দলের ডাকা ৪৮ ঘন্টার অবরোধের প্রথমদিনে কসবার তিনটি স্থানে প্রায় দুই কিলোমিটার রেললাইন উপড়ে ফেলে ও ইমামবাড়ি রেলস্টেশনের সিগ্যানাল পোষ্ট নস্ট করে দেয় দুর্বৃত্তরা।

 

এই সময় রেলের স্লিপার তুলে ফেলা হয়। বন্ধ করে দেয়া হয় ট্রেন চলাচল। স্টেশন মাস্টার খলিলুর রহমান মন্ডলকে অবরুদ্ধ করে রাখা হয়। স্টেশনে আটকা পড়া চট্টগ্রামগামী চট্টলা এক্সপ্রেস ট্রেনের দুটি বগিতে অগ্নিসংযোগ এবং ট্রেনের ইঞ্জিনে ভাঙচুরের ঘটনায় আখাউড়া রেলওয়ে থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক এ.বি. সিদ্দিক বাদি হয়ে কসবা উপজেলার গোপীনাথপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক মো. আনোয়ার হোসেন ভুইয়াকে প্রধান আসামী করে ১৪ জনের নামোল্লেখসহ অজ্ঞাত কয়েক শতাধিক লোককে আসামী করে মামলা করেছেন।

এদিকে একইদিনে কসবা উপজেলা সদরের নোয়াপাড়া, বিনাউটি ইউনিয়নের চাপিয়া এবং বায়েক ইউনিয়নের সালদানদী এলাকায় রেললাইন উপড়ে ফেলার ঘটনায় রেলওয়ের কুমিল্লা অঞ্চলের প্রকৌশল বিভাগের কর্মকর্তা মো. হামিদুল হক বাদী হয়ে অজ্ঞাত কয়েক শতাধিক লোককে আসামী করে আরেকটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার রাতেই মামলা দু’টো দায়ের করা হয়।

 

এদিকে এসব ঘটনায় এ পর্যন্ত পুলিশ গ্রেফতার করেছে আটজনকে। গ্রেফতারকৃতরা হলেন কসবা উপজেলার নোয়াগাঁও গ্রামের হানিফ মিয়া (৪০), ধনরাজপুর গ্রামের ফয়েজ মিয়া (৩২), আড়াইবাড়ি গ্রামের জসিম মিয়া (৩৫), শাখাওয়াত হোসেন (৪৫), আবদুল ছাত্তার (২৫) দিঘীরপাড় গ্রামের জসিম মিয়া (৪০)  নয়নপুর গ্রামের ফিরোজ মিয়া (৪০), বুগীর গ্রামের নুরুল আমিন (৩৫)।

আখাউড়া রেলওয়ে থানার পুলিশ পরিদর্শক (ওসি) সাইদুল ইসলাম বলেন, ‘রেললাইন উপড়ে ফেলা এবং মালামাল চুরির ঘটনায় একটি ও ট্রেনে অগ্নিসংযোগ এবং স্টেশন মাস্টারকে অবরুদ্ধ করে রাখার ঘটনায় আরো একটি মামলা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃতদের গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া বিচারিক হাকিমের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।’

এআর