জানুয়ারিতে বিশ্বে খাদ্য মূল্যসূচক কমেছে

0
69
food-inflation
ফাইল ছবি

food-inflationতিন মাসের মধ্যে এই প্রথম বিশ্ববাজারে খাদ্য মূল্যসূচক কমেছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘের খাদ্য ও কৃষি সংস্থা (এফ এও)। সংস্থাটি বলছে, গত  ডিসেম্বরে খাদ্য মূল্যসূচক আগের মাসের তুলনায় কিছুটা বাড়লেও ২০১৪ সালের জানুয়ারী মাসে তা ২ দশমিক ৮ পয়েন্ট কমেছে। খবর আরটিটি নিউজের।

এফএও’র বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আন্তর্জাতিক বাজারে দুগ্ধজাত পণ্য ছাড়া চিনি, মাংস, খাদ্যশস্য ও উদ্ভিজ্জ্ব তেলের দাম তুলনামুলক কম থাকায় মূল্যসূচকের এ পরিবর্তন ঘটেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয় ডিসেম্বরে এই সূচক ছিল গড়ে ২০৬ দশমিক ২ পয়েন্ট। জানুয়ারি তা কমে দাঁড়ায় ২০৩ দশমিক ৪ পয়েন্টে। আর নভেম্বরে এই সূচক ছিল ২০৫ দশমিক ৭ পয়েন্ট।

সংস্থাটি জানিয়েছে, মাংসের মূল্যসূচক ডিসেম্বরে ছিল ১৮৬ দশমিক ৮ পয়েন্ট। জানুয়ারিতে তা কমে দাঁড়িয়েছে ১৮৫ দশমিক ২ পয়েন্টে। অন্যদিকে দুগ্ধজাত পণ্যের মূল্যসূচক ছিল ২৬৪ দশমিক ১ পয়েন্ট। জানুয়ারিতে তা  বেড়ে দাঁড়ায় ২৬৭ দশমিক ৭ পয়েন্টে।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, জানুয়ারি মাসে চিনির দাম কমেছে ৫ দশমিক ৬ শতাংশ, উদ্ভিজ্জ তেলের দাম কমেছে ৩ দশমিক ৮ শতাংশ। খাদ্য শস্যের দাম ডিসেম্বর থেকে কমেছে ১ দশমিক ৬ শতাংশ। গত মাসে মাংসের দামও কমেছে। তবে দুগ্ধজাত পণ্যের দাম বেড়েছে ১ দশমিক ৩ শতাংশ।

এদিকে খাদ্য শস্যের মূল্যসূচক ১৯১ দশমিক ৫ পয়েন্ট থেকে নেমে দাঁড়িয়েছে ১৮৮ দশমিক ৪ পয়েন্টে। আর উদ্ভিজ্জ্ব তেলের মূল্য সূচক ১৯৬ পয়েন্ট থেকে কমে দাঁড়িয়েছে ১৮৮ দশমিক ৬ পয়েন্টে। ডিসেম্বরে চিনির মূল্যসূচক ছিল ২৩৪ দশমিক ৯ পয়েন্ট। গতমাসে তা মাত্রারিক্তভাবে কমে দাঁড়িয়েছে ২২১ দশমিক ৭ পয়েন্টে ।

এফ এও- এর একজন মুখপাত্র  আব্দেল রেজা আব্বাসিয়ান জানান, আন্তর্জাতিক বাজারে এই পাঁচ পণ্য সরবরাহ ডিসেম্বরের তুলনায়  অনেক বেশি থাকায় পণ্যের দাম কমে যায়। তবে এ সময় খাদ্যের চাহিদাও অনেক ছিল বলে জানান  আব্দেল রেজা।

এস রহমান/