এ বছর অস্কারের দৌড়ে এগিয়ে যারা

0
77
oscar

oscarপ্রত্যেক তারকাই স্বপ্ন দেখেন অস্কার জয়ের। আর স্বপ্ন দেখবেন নাইবা কেন, এই অস্কার পুরস্কার তারকাদের জীবনে অন্যরকম সাফল্য নিয়ে আসে। তাই বছর শেষে প্রত্যেক তারকাদের মধ্যে অস্কার পুরস্কার নিয়ে মাতামাতির অন্ত থাকে না।

সম্প্রতি আনুষ্ঠানিকভাবে  ৮৬তম অস্কারের মনোনয়নে ঘোষণা করা হয়েছে ২৪টি বিভাগে মনোনীতদের নাম। এর মধ্যে দশটি বিভাগে মনোনয়ন নিয়ে অস্কার-দৌড়ে এগিয়ে রয়েছে গেল বছরের দুই সাড়া জাগানো সিনেমা ‘অ্যামেরিকান হাসল’ এবং ‘গ্র্যাভিটি’। এরপরেই আছে ‘টুয়েলভ ইয়ার্স আ স্লেভ’, ক্যাপ্টেন ফিলিপস’, ‘ফিলোমেনা’, ‘দ্য উল্ফ অব ওয়ালস্ট্রিট’, ‘নেব্রাস্কা’, ‘আমেরিকান হ্যাসল’ এবং ‘ডলাস বায়ারস ক্লাব হার’।

‘গ্র্যাভিটি’ র জন্য সেরা পরিচালক এর গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কার জিতেছেন আলফানসো কুয়ারন। এবার একই বিভাগে পেলেন অস্কারের মনোনয়নও। এক্ষেত্রে তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বী ডেভিড ও রাসেল (অ্যামেরিকান হাসল) এবং মার্টিন স্করসিস (দ্য উলফ অফ ওয়াল স্ট্রিট), স্টিভ ম্যাককুইন (টুয়েলভ ইয়ার্স আ স্লেভ)৷

সেরা অভিনেতা হিসেবে মনোনীত হয়েছেন ক্রিস্টিয়ান বেল (আমেরিকান হ্যাসল), ব্রুস ডার্ন (নেব্রাস্কা), লিওনার্দো ডি ক্যাপ্রিও (দ্য উল্ফ অব ওয়ালস্ট্রিট), সিউইটেল এইজোফর (টুয়েলভ ইয়ারস অ্যা স্লেভ) এবং ম্যাথিউ ম্যাকনহে (ডলাস বায়ারস ক্লাব)।

‘সেরা অভিনেত্রী’ বিভাগে প্রত্যাশা অনুযায়ী মনোনয়ন পেয়েছেন কেট ব্ল্যানচেট (ব্লু জ্যাসমিন), অ্যামি অ্যাডামস (অ্যামেরিকান হাসল) এবং সান্ড্রা বুলক (গ্র্যাভিটি)৷ তাদের সঙ্গে যোগ দিয়েছেন জুডি ডেঞ্চ (ফিলোমেনা) এবং মেরিল স্ট্রিপ (অগাস্ট: ওসেজ কাউন্টি)৷

সেরা সহ-অভিনেতা বিভাগে মনোনীত হয়েছেন ব্র্যাডলি কুপার (আমেরিকান হ্যাসল), বরখদ আবদি (ক্যাপ্টেন ফিলিপস), মাইকেল ফাসবেন্ডর (টুয়েলভ ইয়ারস অ্যা স্লেভ), জোনাহ হিল (দ্য উল্ফ অব ওয়ালস্ট্রিট) এবং জেয়ার্ড লেটো (ডলাস বায়ারস ক্লাব)।

পার্শ্ব চরিত্রে সেরা অভিনেত্রী হিসেবে নিজের তৃতীয় অস্কার মনোনয়ন বাগিয়ে নিয়েছেন জেনিফার লরেন্স৷ ‘অ্যামেরিকান হাসল’-এর জন্য গোল্ডেন গ্লোব জিতেছেন তিনি৷ এই বিভাগে তার প্রতিদ্বন্দ্বীরা হলেন, স্যালি হকিন্স (ব্লু জ্যাসমিন), জুলিয়া রবার্টস (অগাস্ট: ওসেজ কাউন্টি), লুপিটা নিওনগো (টুয়েলভ ইয়ার্স আ স্লেভ) এবং জুন স্কুইব (নেব্রাস্কা)৷

বিদেশি ভাষার চলচ্চিত্রে সেরা পাঁচ হলো বেলজিয়ামের ‘দ্য ব্রোকেন সার্কেল ব্রেকডাউন’, কম্বোডিয়ার ‘দ্য মিসিং পিকচার’, ডেনমার্কের ‘দ্য হান্ট’, ফিলিস্তিনের ‘ওমর’ এবং ইটালির ‘দ্য গ্রেট বিউটি’৷

সেরা অ্যানিমেশনে ডিজনির সর্বশেষ অ্যানিমেশন ‘ফ্রোজেন’ থেকে শুরু করে ‘ডেসপিকেবল মি টু’, ‘দ্য ক্রুডস’ রয়েছে এই তালিকায়৷ তালিকায় আরও আছে, ফ্রান্স এবং বেলজিয়ামের যৌথ প্রযোজনার অ্যানিমেশন ‘আর্নেস্ট অ্যান্ড সেলেস্টিন’। সূত্র : দ্য টাইমস অব ইন্ডিয়া।

এস রহমান/