সঞ্চয়পত্রে মন্দা, বিক্রি কমেছে সাড়ে ৯ শতাংশ

0
82
Savings_Certificate
সঞ্চয়পত্র

Savings Certificate sale dropsগত বছরের শেষভাগে সঞ্চয়পত্র বিক্রিতে একটু গতি সঞ্চার হলেও চলতি অর্থবছরে এসে আবার তা হোঁচট খেয়েছে। গত ডিসেম্বর মাসে সঞ্চয়পত্রের বিক্রি কমেছে ৮ দশমিক ৫১ শতাংশ। আর ২০১২ সালের ডিসেম্বরের তুলনায় কমেছে ১২ দশমিক ২১ শতাংশ।

চলতি ২০১২-১৩ অর্থবছরের প্রথম ৬ মাস (জুলাই-ডিসেম্বর)-এর তুলনায় চলতি অর্থবছরের প্রথম ৬ মাসে সঞ্চয়পত্র বিক্রি কমেছে ৯ দশমিক ৫১ শতাংশ। জাতীয় সঞ্চয় পরিদপ্তর সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

পরিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, ২০১৩ সালের নভেম্বরে মোট সঞ্চয়পত্র বিক্রি হয়েছিল এক হাজার ৫৭৯ কোটি ৭১ লাখ টাকা। এ মাসে মূল পরিশোধ করা হয়েছিল ৯০৯ কোটি ১৮ লাখ টাকা আর সুদ পরিশোধ করা হয়েছিল ৫৪৩ কোটি ৬৩ লাখ টাকা। অর্থাৎ নীট পরিমাণ ছিল ৬৭০ কোটি ৫৩ লাখ টাকা।

আর ডিসেম্বরে মোট সঞ্চয়পত্র বিক্রি হয়েছে এক হাজার ৪৪৫ কোটি ২৬ লাখ টাকা। অথাৎ বিক্রি কম হয়েছে ১৩৪ কোটি ৪৫ লাখ টাকা। এ মাসে মূল পরিশোধ করা হয়েছে ৯৫৬ কোটি ৯৯ লাখ টাকা আর সুদ পরিশোধ করা হয়েছে ৬২৭ কোটি ৬৪ লাখ টাকা। এ মাসে সঞ্চয়পত্র বিক্রির নীট পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৪৮৮ কোটি ২৭ লাখ টাকা।

চলতি অর্থবছরের প্রথম ৬ মাসে মোট সঞ্চয়পত্র বিক্রি হয়েছে ১০ হাজার ৪৫৮ কোটি ৮৯ লাখ টাকা। এ সময়ে নীট সঞ্চয়পত্র বিক্রির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৩ হাজার ৮৫৭ কোটি ৬৮ লাখ টাকা। এর মধ্যে ব্যাংকের মাধ্যমে বিক্রি হয়েছে ৩ হাজার ৬৪৪ কোটি ৫৬ লাখ, সঞ্চয় ব্যুরোর মাধ্যমে এক হাজার ৪৯৬ কোটি ৮৯ লাখ এবং ডাকঘরের মাধ্যমে ৫ হাজার ৩১৭ কোটি ৪৪ লাখ টাকা।

বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. সালেহ উদ্দিন আহমেদ মনে করেন, সঞ্চয়পত্রের বিক্রি বাড়াতে হলে এ খাতের উপর বিদ্যমান কর সম্পূর্ন উঠিয়ে দেয়া দরকার। তিনি বলেন, সঞ্চয়কারীদের কাছ থেকে কর কেটে রাখা হচ্ছে যাদের অনেকের করযোগ্য আয়ই নেই। ফলে তারা চাইলেও এই কর ফেরত নিতে পারছে না। তাছাড়া সঞ্চয়পত্র বিক্রি বাড়ানোর ক্ষেত্রে সরকারের নতুন কোন উদ্যোগও নেই।

এদিকে সঞ্চয়পত্র বিক্রি বাড়ানোর ক্ষেত্রে সরকারের উদ্যোগের বিপরীতে উল্টো চলতি অর্থবছরের শেষ ৬ মাসের মুদ্রনীতিতে সরকারের ঋণের প্রবৃদ্ধি ১৯ দশমিক ৫০ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ২২ দশমিক ৯০ শতাংশ করা হয়েছে।

বর্তমানে ৫ বছর মেয়াদি সঞ্চয়পত্রে ১৩ দশমিক ১৯ শতাংশ, একই মেয়াদে পরিবার সঞ্চয়পত্রে ১৩ দশমিক ৪৫ শতাংশ, পেনশনার সঞ্চয়পত্রে ১৩ দশমিক ১৯ শতাংশ এবং তিন বছর মেয়াদি তিন মাস অন্তর মুনাফাভিত্তিক সঞ্চয়পত্রে ১২ দশমিক ৫৯ শতাংশ সুদ রয়েছে। ব্যাংকে এখন মেয়াদি আমানতের সুদহার এর চাইতে কম। সঞ্চয়পত্রের মুনাফা থেকে উৎসে কর কাটা হয় ৫ শতাংশ। তবে এক সময় পেনশনার সঞ্চয়পত্রে উৎসে কর ছিল না। অবসরে যাওয়া চাকরিজীবীরা দীর্ঘদিন ধরে পেনশনার সঞ্চয়পত্রের মুনাফা করমুক্ত রাখার দাবি জানিয়ে আসছে।

উল্লেখ্য, ২০১৩-১৪ অর্থবছরে সরকার মোট সঞ্চয়পত্র বিক্রির লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে ২০ হাজার কোটি টাকা আর নীট লক্ষ্যমাত্রা ধরেছে ৪ হাজার ৯৭১ কোটি টাকা। #
এসএই/