ঝিনাইদহে হাম ও রুবেলা টিকা দেওয়ার পর স্কুল ছাত্রের মৃত্যু

0
61
Jhenidah _Dead_

 Jhenidah _Dead_ঝিনাইদহের হরিণাকুণ্ডে হাম ও রুবেলা টিকা দেওয়ার তিন ঘণ্টা পর এক স্কুল ছাত্র মারা গেছে। সে হরিণাকুণ্ড উপজেলার ভায়না মাধ্যমিক স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র এবং কালীশংকরপুর গ্রামের মোকাদ্দেস আলীর ছেলে। তার মৃত্যুর প্রকৃত কারণ অনুসন্ধানে ৩টি তদন্ত টিম গঠন করা হয়েছে। শিশুটির আগে থেকেই শ্বাসকষ্ট রোগ ছিল বলে জানা গেছে।

ঝিনাইদহের সিভিল সার্জন ডাক্তার নাসরিন সুলতানা জানান, শনিবার দুপুর ১২টার দিকে  ভায়না স্কুলের ৪৩৩ জন ছাত্র-ছাত্রীকে হাম রুবেলা (এমআর) টিকা দেওয়া হয়। অন্য ছাত্র-ছাত্রীদের সাথে মাসুমকেও দেওয়া হয়। মাসুম আধাঘণ্টা বিশ্রাম নেওয়ার পর বন্ধুদের সাথে খেলাধুলা করতে থাকে। প্রায় দু’ঘণ্টা পর শিশুটি অসুস্থ হয়ে পড়ে। এ ঘটনার পর হরিণাকুণ্ড উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে অ্যাম্বুলেন্স পাঠানো হয়। দুপুর ২টা ৫৫ মিনিটে ছেলেটিকে হরিণাকুণ্ড স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনা হয়। বিকেল ৩টায় সে মারা যায়।

সিভিল সার্জন জানান, ছেলেটির বাবা তাঁকে জানিয়েছেন- মাসুমের অ্যাজমা (শ্বাসকষ্ট) রোগ ছিল। ছেলের এ রোগের ওষুধ হিসেবে কনটিন ও ব্রডিন স্কুলের প্রধান শিক্ষকের কাছে দিয়ে রাখতেন শিশুটির বাবা। অসুস্থ বোধ করলে ছেলেকে তিনি এ ওষুধ দিতে বলেছিলেন।

সিভিল সার্জন আরও জানান, টিকা দেওয়ার কারণে নয়, শ্বাসকষ্ট রোগেই শিশুটির মৃত্যু হয়েছে। তবে শিশুটির মৃত্যুর পর মন্ত্রণালয়ে জানালে একটি ঊর্ধ্বতন তদন্ত টিম গঠন করা হয়েছে। জেলা পর্যায়ে সিনিয়র ডাক্তারদের সমন্বয়ে একটি এবং উপজেলা পর্যায়ে আরও একটি তদন্ত টিম গঠন করা হয়েছে। শিশুটির পরিবারের পক্ষ থেকে এ মৃত্যু নিয়ে কোনো অভিযোগ করেননি। তার বাবা ময়না তদন্ত ছাড়াই নিজ দায়িত্বে ছেলের মৃতদেহ বাড়িতে নিয়ে গেছেন।

কেএফ