ঘরের মেঝে পরিষ্কার করবে রোবট

0
141
robot

robotআন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলায় ক্রেতাদের জন্য শার্প ইলেকট্রনিক্স কোম্পানির নতুন রোবটিক পণ্য ভ্যাকুয়াম ক্লিনার’ ঘরের মেঝে পরিষ্কার করবে। ঘরের মধ্যে সুইচ চালু করে দিলে নিজে নিজেই ঘরের মেঝেতে থাকা সব ময়লা আধা ঘণ্টার মধ্যে পরিষ্কার করে ফেলবে।

ময়লা পরিষ্কার হয়ে গেলে নিজেই বলে দিবে আর ময়লা নেই। ময়লা পরিষ্কার করা ছাড়াও এটি রুমের মধ্যে আবদ্ধ থাকা বাতাসকেও করবে জীবাণুমুক্ত। যন্ত্রটি পরিচালিত হবে রিমোট কন্ট্রোল দ্বারা।

এছাড়া রোবটটি কীভাবে কাজ করছে সেটাও দেখা যাবে টিভির মাধ্যমে। তবে এক্ষেত্রে টিভির সঙ্গে ক্যাবল দিয়ে যন্ত্রটির সংযোগ দিতে হবে। যন্ত্রটির সঙ্গে একটি ১ দশমিক ৩ মেগা পিক্সেল সিসি ক্যামেরা রয়েছে। এটি বাসা-বাড়ির সিকিউরিটি হিসেবে কাজ করবে। বাসা থেকে বের হওয়ার সময় সুইচ অন করে গেলে সবকিছু রেকর্ড করে রাখবে। এন্ড্রয়েড স্মার্ট ফোন দিয়েও এটি পরিচালনা করা যাবে।

এ বিষয়ে কথা হলে প্যাভিলিয়ন ইনচার্জ জাহিদ হোসেন ঝিলু নতুন এ যন্ত্রে বিভিন্ন বৈশিষ্ট্য অর্থসূচকের কাছে তলে ধরে বলেন, এটি এমন একটি যন্ত্র একবার চার্জ দিলেই একটানা ছয় ঘণ্টা ময়লা পরিষ্কার করতে পারবে। তাই বিদ্যুৎও খরচ হবে কম।

তিনি বলেন, আরও অবাক হওয়ার বিষয় হলো চার্জ শেষ হয়ে গেলে যন্ত্রটি ঘরের মধ্যে রাখা চার্জারের কাছে গিয়ে নিজ থেকেই চার্জ নেবে।  কেউ মুখে এদিক-সেদিক চলাফেরার জন্য কোনো আদেশ দিলে ঠিক সেই কাজটি করবে রোবটটি।
রোবটের ভেতরে একটি কৃত্রিম সেন্সর সংযুক্ত আছে। এই সেন্সরের মাধ্যমেই এটি এতসব কাজ করতে পারে।

বাংলাদেশে শার্প ইলেকট্রনিক্স কোম্পানি প্রথমবারের মতো এই পণ্যটি ক্রেতাদের জন্য নিয়ে এসেছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, এ কি ক্লিনার রোবটটি এখনও বিক্রি করা শুরু হয়নি। শুধু ক্রেতাদের আগামবার্তা দেওয়ার জন্যই বাণিজ্যমেলার প্যাভিলিয়নে এটি প্রদর্শন করা হচ্ছে।

তবে ইচ্ছা থাকলেও নিম্ন ও মধ্যবিত্ত ফ্যামিলির পক্ষে এটা কেনা কষ্টকর। কারণ মেঝে পরিষ্কার করা এ যন্ত্রটি কিনতে গুণতে হবে এক লাখ টাকা। ক্রেতারা অগ্রিম অর্ডার দিলেই কেবল এটি তাদের সরবরাহ করা হবে।

শার্প ইলেকট্রনিক্সের প্যাভিলিয়নে পাওয়া যাবে এয়ার পিউরিফায়ার নামে আরও একটি নতুন যন্ত্র। এটি রুমের মধ্যে থাকা সব ময়লা পরিষ্কার করতে পারবে। রুমে ময়লা থাকলে ময়লা শোষণের সময় এর প্রদর্শিত সংকেত চিহ্নটি লাল হয়ে যাবে এবং শেষ হলে সংকেতটি সবুজ হয়ে যাবে। তারপর পরিচ্ছন্ন বাতাস দিবে।

এ পণ্যটি বিভিন্ন সাইজের হয়ে থাকে। রুমের আয়তন অনুযায়ী পণ্যটির দাম হবে ৩২ থেকে ৩৮ হাজার টাকা। গাড়ির জন্য দাম পড়বে ১৫ হাজার টাকা, কম্পিউটারের জন্য ৯ হাজার ৭০০ এবং আলমারির জন্য ২৫ হাজার টাকা।

শার্প ইলেকট্রনিক্স প্যাভিলিয়নে দর্শনার্থীদের জন্য  আরও আকর্ষণীয় হলো ৯ লাখ ৮০ হাজার টাকা দামের ৭০ ইঞ্চি এলইডি টিভি, ৩ লাখ ৪০ টাকা মূল্যের ফ্রিজ, ৫৬ হাজার ৯০০ টাকার সুপার স্টিম মাইক্রোওভেন, এবং ১ লাখ থেকে ১ লাখ ১১ হাজার টাকা দামের মধ্যে কুল-হট এসি।

প্রত্যেকটি এলইডি টিভিতে ৮ থেকে ১০ হাজার টাকা ছাড় দেওয়া হচ্ছে। আর ফ্রিজে ডেলিভারি ও এসিতে ফিটিং সুবিধা দেওয়া হচ্ছে।

মেলা উপলক্ষে ২৩ নম্বর প্যাভিলিয়নে ‘শার্প ইলেকট্রনিক্স’ ক্রেতাদের জন্য আকর্ষণীয় মূল্যে এসব পণ্য সরবরাহ করছে।

জেইউ/ এআর