দুই মাস পর ডিএসইতে লেনদেন ৮০০ কোটি টাকা ছাড়ালো

0
34
DSE-UP
ডিএসই সূচক ঊর্ধ্বমুখী

ডিএসই সূচক ঊর্ধ্বমুখীদীর্ঘ দুই মাস পর ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই)লেনদেনের পরিমান আটশো কোটি টাকা ছাড়িয়েছে। বুধবার ডিএসইতে লেনদেন হয় ৮৩৪ কোটি ৮৮ লাখ টাকার।এছাড়াও এই দিন ডিএসই এবং সিএসইর সব ধরনের মূল্যসূচক বেড়েছে।বেড়েছে কয়েকটি খাতের বেশির ভাগ শেয়ারের দর।এর আগে গত বছরের ২০ নভেম্বর ডিএসইতে লেনদেন হয়েছিল ৮৮৯ কোটি ৫ লাখ টাকা।

বাজার বিশ্লেষকদের মতে,ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে শরীয়াহ সূচক নতুনভাবে যুক্ত হয়েছে। এই সূচকের লেনদেন বাড়ছে। তাছাড়া বিএনপির সমাবেশের পর বিনিযোগকারীরা পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করতে সাহস দেখাচ্ছে।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা যায়, এই দিন ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই)লেনদেন হওয়া ৬৪ শতাংশ কোম্পানির শেয়ার দর বেড়েছে।ডিএসইএক্স সূচক ৫৫ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ২১ শতাংশ বেড়ে অবস্থান করছে ৪ হাজার ৬৪০ পয়েন্টে। ডিএসইএস সূচক বা শরীয়াহ সূচক ১৩ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ৪১ শতাংশ বেড়ে অবস্থান করছে ৯৬১ পয়েন্টে।ডিএস৩০ সূচক ২৫ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ৫৭ শতাংশ বেড়ে অবস্থান করছে ১ হাজার ৬৪০ পয়েন্টে।

ডিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ২৯৫ টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৯১ টির কমেছে ৮৩ টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২১ টির।

ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষে (টাকার পরিমানে)থাকা দশ কোম্পানি হল- পদ্মা অয়েল, মেঘনা পেট্রোলিয়াম, এ্যাকটিভ ফাইন, স্কয়ারফার্মা, লংকাবাংলা, অলিম্পিক, এসপিপিসিএল,কনফিডেন্সড সিমেন্ট, গ্রামীণফোন এবং ডেল্টা লাইফ।

চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সিএসই সার্বিক সূচক ১৮৭ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১৪ হাজার ৩৮১ পয়েন্টে। মোট লেনদেন হয়েছে ২৩২ টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৬৬ টির কমেছে ৫৪ টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১২ টির।

এমআরবি/