পাঁচ মাসে হিলি স্থলবন্দর থেকে আয় ৭৪ কোটি টাকা

hili

হিলি বন্দরচলতি অর্থবছরে প্রথম পাঁচ মাসে দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম স্থলবন্দর দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দর থেকে সরকার ৭৪ কোটি টাকা রাজস্ব আয় করেছে। গত নভেম্বর মাসে ১৮ কোটি টাকা লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে ১৮ কোটি ৩৮ লক্ষ টাকা রাজস্ব আয় হয়েছে। চলতি ডিসেম্বর মাসে সরকার কর্তৃক নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা ১৯ কোটি টাকা।

কাষ্টমস সূত্রে জানায়, ২০১৩-১৪ অর্থবছর শুরুর মাস জুলাইয়ে রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা ছিল ১৪ কোটি ৫০ লাখ টাকা, উক্ত মাসে আয় হয় ১২ কোটি ২ লাখ টাকা। দ্বিতীয় মাস আগষ্টে ১৪ কোটি ৫০ লক্ষ টাকা লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে আয় হয়েছে ২২ কোটি ৯৬ লাখ ৮৮ হাজার ৫৬০ টাকা। তৃতীয় মাস সেপ্টেম্বরে ১৫ কোটি ৫০ লাখ টাকার বিপরীতে আয় দাঁড়ায় ১৮ কোটি ৩২ লাখ ৬৮ হাজার ৫১৯ টাকা, অক্টোবর ১৬ কোটি ৫০ লক্ষ টাকা লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে আয় দাঁড়ায় দুই কোটি ৬১ লাখ টাকা। গত নভেম্বর মাসে ১৮ কোটি টাকার লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে এ বন্দর থেকে সরকার ১৮ কোটি ৩৮ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা রাজস্ব আদায় করে। সব মিলিয়ে গত ৫ মাসে রাজস্ব আহরণের পরিমাণ দাঁড়াল ৭৪ কোটি ৩১ লাখ সাত হাজার ৭৯ টাকা। আমদানীকৃত পণ্যগুলোর মধ্যে ছিল পেঁয়াজ, কাঁচামরিচ, মাছ, আপেল, কমলা, আঙ্গুর, টমেটো সহ বিভিন্ন কাঁচাপণ্য। উল্লেখ্য ২০১৩-১৪ অর্থ বছরে সরকার কর্তৃক নির্ধারিত রাজস্ব আয়ের লক্ষ্যমাত্রা ২৩৮ কোটি টাকা।

হিলি কাষ্টমসের সহকারী কমিশনার মাজেদুল হক জানান, গত নভেম্বর মাসে হরতাল ও অবরোধের কারণে বেশীভাগ সময়ই বন্দরে অচলাবস্থা বিরাজ করে। দেশের স্বার্থে ও নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য সামগ্রীর আমদানী, সরবরাহ ও মজুদ সহ সার্বিক মূল্য পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে বন্দরটি শুক্রবারেরও খোলা রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছে। যার ফলে কাঙ্খিত লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশী রাজস্ব আদায় সম্ভব হয়েছে।