আবার সরব খুলনার সিকিউরিটিজ হাউজ পাড়া

0
87
সরব খুলনার সিকিউরিটিজ হাউজ

সরব খুলনার সিকিউরিটিজ হাউজটানা ৫ কার্যদিবসে দেশের পুঁজিবাজারের সূচক ঊর্ধ্বমুখী থাকায় বেশিরভাগ কোম্পানির দর বৃদ্ধি পেয়েছে। যার কারণে খুলনার নির্জীব সিকিউরিটিজ হাউজগুলো বিনিয়োগকারীদের উপস্থিতিতে সরব হয়ে উঠেছে।
স্থানীয় হাউজ কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, দেশের রাজনৈতিক সঙ্কটকে পাশ কাটিয়ে বাজার উর্ধ্বমুখী থাকায় বিনিয়োগকারীদের সক্রিয় অংশগ্রহণ বেড়েছে। ফলে নির্জীব সিকিউরিটিজ হাউজে বিনিয়োগকারীদের উপস্থিতি বাড়তে শুরু করেছে।  বিশেষ করে সোমবার হরতাল অবরোধ না থাকায় প্রতিটি হাউজে বিনিয়োগকারীদের উপস্থিতি লক্ষণীয় ছিল বলে জানান তারা।
এ প্রসঙ্গে আইল্যান্ড সিকিউরিটিজ হাউজের খুলনা শাখা ব্যবস্থাপক তাপস কুমার সাহা বলেন, টানা ৫ কার্যদিবস সূচকের ঊর্ধ্বগতি অব্যাহত থাকায় এবং বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার দর বৃদ্ধি পাওয়ায় সাধারণ বিনিয়োগকারীদের মধ্যে বাজার নিয়ে নতুন প্রত্যাশা ভর করেছে। যারা এক সময় রাগে-ক্ষোভে হাউজে আসা ছেড়ে দিয়েছিলেন, তারা অবরোধের মধ্যে নতুন উদ্যমে সশরীরে হাউজে এসে লেনদেনমুখী হচ্ছেন।
তিনি আরও বলেন, সার্বিকভাবে বাজার কিছুটা ভালো হওয়ায় বিনিয়োগকারীরা আগের চেয়ে কিছুটা স্বস্তিতে আছেন।
এসোসিয়েটেড ক্যাপিটাল সিকিউরিটিজ হাউজের খুলনা শাখা ব্যবস্থাপক ওয়েস আলী জামাল বলেন, বিনিয়োগকারীরা বর্তমান বাজার ইতিবাচক হিসেবে দেখছেন। ফলে তারা হাউজে এসে লেনদেনে অংশ নিচ্ছেন।
অভিজ্ঞ বিনিয়োগকারী মো. আব্দুল্লাহ বলেন, প্রতিদিন সূচকের ঊর্ধ্বমুখীতায় বিনিয়োগকারীরা শঙ্কা ঝেড়ে ফেলে আস্থায় লেনদেনে ফিরেছেন। তিনি বর্তমান উত্থানের স্থায়িত্ব প্রত্যাশা করেন।
বিনিয়োগকারী জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, এ বছরে আমরা আশা করছি দেশের পুঁজিবাজার পরিস্থিতি স্বাভাবিক ও স্থিতিশীল হবে। যার কারণে আমরা কিছুটা ভালো বাজার পেয়ে হাউজে এসে লেনদেনে অংশগ্রহন করছি। জানিনা আমাদের প্রত্যাশা পূরণ হবে কিনা। তিনি নতুন সরকারের কাছে বাজার কারসাজি মুক্ত রাখার দাবি জানান।