স্মৃতিলোপ স্ট্রোকের পূর্বাভাস

0
97
Thinking-Man
Thinking-Man
স্মৃতির সমস্যায় আক্রান্ত হওয়া মানে ওই ব্যক্তির প্রতি লক্ষ্য রাখা উচিত।

উচ্চ শিক্ষিতরা স্মৃতিভ্রষ্টতায় ভুগলে, তাদের স্ট্রোক করার ঝুঁকি বেশি।

স্ট্রোক জার্নালে প্রকাশিত নেদারল্যান্ডসে এক তুলনামূলক গবেষণায় দেখা গেছে, স্মৃতি সমস্যায় আক্রান্ত অল্প লেখাপড়া জানা লোকদের তুলনায় বেশি লেখাপড়া জানা লোকদের স্ট্রোক করার ঝুঁকি ৩৯ শতাংশ বেশি।

২০ বছর ধরে ৯ হাজার মানুষের ওপর সমীক্ষা চালিয়ে এরাসমাস ইউনিভার্সিটির গবেষকরা এ তথ্য জানতে পেরেছেন।

এদের সবার বয়সে ৫৫ বছর ও তার বেশি এবং সবাই স্বাস্থ্যবান। শুরুতে এদের প্রত্যেকের কাছ থেকে স্মৃতিভ্রষ্টতা আছে কিনা, সে সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ করা হয়।

২০১২ সালে অংশগ্রহনকারীদের মধ্যে ১ হাজার ১৩৪ স্ট্রোকের ঘটনা ঘটে।

পরে তথ্য পর্যালোচনা করে গবেষকরা দেখতে পান, যে ব্যক্তিরা আগে স্মৃতিভ্রষ্টতা সম্পর্কে অভিযোগ করেছিলেন, তাদের স্ট্রোকের ঝুঁকি বেড়ে গেছে।

গবেষণায় আরও দেখা যায়, যে সব অংশগ্রহণকারীদের বিশ্ববিদ্যালয় বা উচ্চ শিক্ষার ডিগ্রি আছে, তাদের স্ট্রোকের ঝুঁকি অন্যান্যদের তুলনায় বেশি।

এ সম্পর্কে এরাসমাস ইউনিভার্সিটির নিউরোএপিডেমিওলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আরফান ইকরাম জানান, স্মৃতিভ্রষ্টতার মতো সমস্যা কগনেটিভ ড্যামেজের বিরুদ্ধে মস্তিষ্কের প্রতিরোধ ব্যবস্থা নির্দেশ করে।

তিনি জানান, উচ্চ শিক্ষিতদের স্মৃতিবিভ্রম বা ডিমেনশিয়ায় আক্রান্ত হতে অপেক্ষাকৃত বেশি সময় লাগে। কিন্তু একবার তা দেখা যাওয়ার মানে, ব্যবস্থা ভেঙ্গে পড়েছে।

ইকরাম বলেন, এর অর্থ ওই ব্যক্তির কগনেটিভ রিসার্ভ, যা ব্রেন ড্যামেজ প্রতিরোধ করে আর অবশিষ্ট নেই।

তিনি আরও জানান, স্মৃতির সমস্যায় আক্রান্ত হওয়া মানে ওই ব্যক্তির প্রতি লক্ষ্য রাখা উচিত, কারণ তার স্ট্রোকের ঝুঁকি আছে।

প্রফেসর ইকরাম বলেন, স্ট্রোক এবং ডিমেনশিয়ার বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য শেষ বয়সের শুরু থেকে মস্তিষ্কের প্রতি যত্নবান হওয়া উচিত।