‘উধাও’ নববধূদের খুঁজছে পুলিশ

0
78
Running of the Brides
থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককে গতকাল ২৯ নভেম্বর শনিবার অনুষ্ঠিত হয়েছে ‘কনেদের দৌড়-৩’ প্রতিযোগিতা। এবারের প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছে ৬৫ যুগল। বিজয়ীর পুরস্কার হিসেবে দেওয়া হয় ১০ লাখ থাই বাথ (৩০ হাজার ৪৩৭ মার্কিন ডলার) বিয়ের প্যাকেজ।

চীনের উত্তরাঞ্চলীয় প্রদেশে হেবেইয়ের দরিদ্র এক গ্রামের যুবকদের বিয়ে করে পালিয়ে যাওয়া ভিয়েতনামের শতাধিক বৌয়ের সন্ধান করছে চীনা পুলিশ। এরা সংঘবদ্ধ চক্রের সদস্য হতে পারে বলে পুলিশ ধারণা করছে। আজ বৃহস্পতিবার বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ কথা জানানো হয়।

ভিয়েতনামী বধূ
ভিয়েতনামী বধূ । ছবিটি প্রতীকী

প্রতিবেদনে জানানো হয়, হেবেই প্রদেশের কুজহোতে উ মেইয়ো নামের এক ভিয়েতনামি নারী আছেন। তিনি সেখানে প্রায় ২০ বছর ধরে বাস করছেন। চলতি বছরের শুরুতে তার মাধ্যমেই চীনের অবিবাহিত এই যুবকদের সঙ্গে ভিয়েতনামের অবিবাহিত তরুণীদের পরিচয় হয়। প্রতিটি বিয়ের জন্য মেইয়ো ১০ হাজার ইউয়ান করে পেয়েছেন।

গত ২০ নভেম্বর এসব বৌয়েরা স্বামীকে বলেন, ভিয়েতনামীদের সঙ্গে খাওয়ার দাওয়াত আছে। কিন্তু বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর আর তাদের খোঁজ মেলেনি।

পরে তরুণরা উ মেইয়োর বাসায় গিয়ে জানতে পারে সে কয়েকদিন আগেই বাড়ি থেকে চলে গেছে।

এ ঘটনার কয়েকদিন পর এক বধূ হেবেইতে ফিরে এসে জানায়, দুপুরের খাবার খেয়ে সে জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। জ্ঞান ফেরার পর তিনি নিজেকে তারে স্বামীর বাড়ি  থেকে বহু দূরে একটি ছোট ঘরে নিজেকে আবিষ্কার করেন।

সেখানে ‘অপহরণকারীরা’ তাকে জানায়, অন্য জায়গায় তার জন্য নতুন স্বামী খোঁজা হচ্ছে। পরে সে কৌশলে সেখান থেকে পালিয়ে আসে।

চীনে নারী-পুরুষের সংখ্যায় ভারসাম্যহীনতার কারণে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার কয়েকটি দেশ বিশেষ করে ভিয়েতনাম, কম্বোডিয়া এবং মায়ানমার থেকে থেকে বউ হিসেবে নারীকে কেনা-বেচার ঘটনা ঘটে থাকে।

ইউএম/