আজই ঘুরে দাঁড়াতে পারে বাজার

0
114
stock-graph
পুঁজিবাজার গ্রাফ
stock-graph
পুঁজিবাজার গ্রাফ

পুঁজিবাজারে আজ একটু স্বস্তির সুবাতাস বইতে পারে। টানা পতন ধারা থেকে বের হয়ে আসতে পারে বাজার। বাড়তে পারে লেনদেন ও সব ধরনের সূচক। বাজারের ধারা বিশ্লেষণ এবং সংশ্লিষ্টদের বিভিন্ন উদ্যোগ থেকে এমন আভাস পাওয়া যাচ্ছে।

বেশ কিছুদিন ধরেই প্রায় নিরচ্ছিন্নভাবে মূল্য পতন হচ্ছে পুঁজিবাজারে। কমছে মূল্যসূচক। এর মধ্যে গত তিন দিন টানা সূচক কমেছে। এ সময়ে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ডিএসইএক্স সূচক কমেছে প্রায় দেড়শ পয়েন্ট। এর মধ্যে গতকাল সোমবার কমেছে ৬৯ পয়েন্ট। গত দুই দিনের পতন বিনিয়োগকারীদের মধ্যে কাঁপন ধরিয়ে দিয়েছে। কিছু কারণে তারা আশংকা করছেন, আগামী দিনগুলোতে আরও দর পতন হতে পারে। এর প্রভাবে লেনদেন ব্যাপকভাবে কমে যায়। রোববার ডিএসইতে চার মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন লেনদেন হয়।

জানা যায়, বেশ কিছু কারণে বড় দর পতন হয় বাজারে। কারণগুলোর মধ্যে রয়েছে- ডিএসইর নতুন সফটওয়্যার সম্পর্কে নানা গুজব এবং বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকারস অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) দেওয়া মার্জিন ঋণ সংক্রান্ত প্রস্তাব। ওই প্রস্তাবে ১ কোটি টাকার বেশী মার্জিন ঋণ গ্রহীতাদের নাম বাংলাদেশ ব্যাংকের ক্রেডিট ইনফরমেশন ব্যুরোতে (সিআইবি) পাঠানোর কথা বলা হয়। আর এ বিষয়টিই বাজারে সবচেয়ে বেশী আতঙ্ক ছড়ায়।

জানা গেছে, বিএমবিএর প্রস্তাব পাওয়ার সাথে সাথেই তা নিয়ে আলোচনা করেছে বিএসইসি। সুনির্দিষ্ট কোনো সিদ্ধান্ত না হলেও এ ধরনের প্রস্তাবে সম্মতি না দেওয়ার পক্ষে তারা প্রাথমিক অবস্থান নেন।

সোমবার বিকালে বিএসইসির চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. খায়রুল হোসেন অর্থসূচককে বলেন, তারা এমন কোনো সিদ্ধান্ত নেবেন না বা এমন কোনো প্রস্তাবে সাড়া দেবেন না যা সাধারণ বিনিয়োগকারীদের স্বার্থের বিপক্ষে যায়; বাজারকে ক্ষতিগ্রস্ত করে।

তার ওই বক্তব্যে বিএমবিএর প্রস্তাবে সাড়া না দেওয়ার ইঙ্গিত স্পষ্ট।

এছাড়া সোমবার তিনি আইসিবির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. ফায়েকুজ্জামানের সাথে বাজার পরিস্থিতি নিয়ে বৈঠক করেন বলে জানা গেছে। আজ বাজারে আইসিবি জোরালো ভূমিকা নিতে পারে।

অন্যদিকে ডিএসইর নতুন সফটওয়্যারে টিকার যাবে না মর্মে যে উদ্বেগ ছড়িয়েছে তাকেও ভিত্তিহীন বলছেন সংশ্লিষ্টরা। গতকাল থেকে ওই সফটওয়্যারে নকল তথা পরীক্ষামূলক লেনদেন শুরু হয়েছে। এতে কোনো অসঙ্গতি ধরা পড়লে সে অনুসারে সফটওয়্যারে প্রয়োজনীয় পরিবর্তন আনা হবে বলে জানিয়েছে ডিএসই কর্তৃপক্ষ।