জাপানের প্রধানমন্ত্রীর গভীর কৃতজ্ঞতা প্রকাশ

0
62

bangladesh-japan-premier-230x155জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবে বাংলাদেশ সফরকালে উষ্ণ আতিথেয়তা প্রদান এবং নিরাপত্তা পরিষদের অস্থায়ী সদস্যপদের প্রার্থিতা প্রত্যাহারের জন্য বাংলাদেশ সরকারের প্রতি গভীর কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী শুক্রবার বিকেলে জাপানের রাজধানী টোকিওতে জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবের সঙ্গে সাক্ষাৎ করলে তিনি এ কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।
জাপানের প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ সফরকালে সেদেশের মানুষের প্রাণশক্তি গভীরভাবে প্রত্যক্ষ করার সুযোগ তার হয়েছে।
বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আজ এ কথা বলা হয়।
স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বিশ্বব্যাপী নারীর ক্ষমতায়নে জাপানের আগ্রহ ও অঙ্গীকার এবং সক্রিয় ভূমিকার প্রশংসা করেন। তিনি ২০২০ সালের মধ্যে জাপানের নারী নেতৃত্বের হার শতকরা ৩০ ভাগে উন্নীত করার উদ্যোগের জন্য জাপানের প্রধানমন্ত্রীর প্রশংসা করেন।
স্পিকার আশা প্রকাশ করেন, ‘ওয়ার্ল্ড এসেম্বলি ফর উইমেন’ সম্মেলনটি বিশ্বব্যাপী নারীদের ক্ষমতায়নে একটি অনন্য প্লাটফর্ম হিসেবে কাজ করবে এবং প্রধানমন্ত্রী অ্যাবে এক্ষেত্রে একজন আদর্শ হয়ে থাকবেন।
এর আগে ওয়ার্ল্ড এ্যাসেম্বলী ফর ওমেন, টোকিও -২০১৪ শীর্ষক সম্মেলনে অংশ নিতে জাপানের প্রধানমন্ত্রীর আমন্ত্রণে গতকাল সকালে স্পিকার টোকিওতে পোঁছান। জাপানে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মাসুদ বিন মোমেন জাপানের নারিতা বিমান বন্দরে তাকে অভ্যর্থনা জানান।
জাপানে পৌঁছেই স্পিকার গতকাল ব্যস্ত সময় অতিবাহিত করেন। টোকিওতে তিনি গতকাল প্রথমে জাপানিজ ডায়েট এর নিম্নকক্ষের স্পিকার বুনমে ইবুকির সাথে সাক্ষাত করেন। সাক্ষাতকালে উভয়েই দু’দেশের প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে জাপান ও বাংলাদেশের মধ্যে সফর বিনিময়ের মাধ্যমে ‘সর্বাত্মক অংশীদারিত্ব’ কার্যক্রমের উদ্বোধনকে স্বাগত জানান।।
নিম্ন কক্ষের স্পিকার জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের অস্থায়ী সদস্য পদে জাপানকে সমর্থন দেয়ায় বাংলাদেশের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। এ সময় ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী দু‘দেশের জনগণের সম্পর্ক উন্নয়নে সংসদ সদস্যগণের বিশেষ ভুমিকার বিষয উল্লেখ করেন।
এর পর স্পিকার তার সম্মানে জাপান-বাংলাদেশ সংসদীয় মৈত্রী লীগের দেয়া মধ্যহ্ন ভোজে অংশ নেন। সেখানে অন্যান্যের সংসদ সদস্যদের সাথে নিয়ে মৈত্রী লীগের ডেপুটি-ভাইস চেয়ারম্যান কাওয়ামোরা ও সেক্রেটারি জেনারেল ইচিরো সুকাডো মধ্যহ্ন ভোজে অংশ নেন। মধ্যাহ্ন ভোজ শেষে বৈঠকালে কাওয়ামোরা বর্তমানে দু’দেশের মধ্যে বিদ্যমান দ্বিপাক্ষিক বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক আরো জোরদার করতে মৈত্রী লীগের কার্যক্রম আরো সম্প্রসারণের ওপর জোর দেন। এ সময় স্পিকার দু’দেশের পার্লামেন্ট ও এর সদস্যদের মধ্যে আরো অভিজ্ঞতা বিনিময়ের ওপর গুরুত্বারোপ করেন।
এছাড়া স্পিকার গতকাল জাপানিজ ডায়েটের উচ্চকক্ষের প্রেসিডেন্ট মাসাকি ইয়ামাজাকির সাথে তার কার্যালযে সাক্ষাৎ করেন। ইয়ামাজাকি নারীর ক্ষমতায়ন ও জেন্ডার সমতায় বাংলাদেশের সাফল্যের ভূয়সী প্রশংসা করেন।
এ সময় স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, দু’দেশের প্রধানমন্ত্রীসহ উচ্চ পর্যায়ের দ্বিপাক্ষিক সফর বিনিময়ের ফলে বাংলাদেশ-জাপান সম্পর্কের নবদিগন্তের সূচনা হয়েছে।
সফরের প্রথমদিন স্পিকার জাপান বিজনেস ফেডারেশনে ডব্লিউএডব্লিউ এ যোগদান করেন। এছাড়া গতকাল সন্ধ্যায় তিনি জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবে ও মাদাম আকিয়ে অ্যাবের দেয়া ওয়ার্ল্ড এ্যাসেম্বলী ফর ওমেন, টোকিও -২০১৪ সম্মেলনের অভ্যর্থনা পর্বে যোগদান করেন।
সূত্র: বাসস