‘দেশে ফোর-জির চাহিদা তৈরি হয়েছে’

0
88
sunil kanti bose, btrc chairman
সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখছেন বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশনের (বিটিআরসি)’র চেয়ারম্যান সুনীল কান্তি বোস। ছবি- খালেদুল কবির নয়ন
sunil kanti bose, btrc chairman
সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখছেন বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশনের (বিটিআরসি)’র চেয়ারম্যান সুনীল কান্তি বোস। ছবি- খালেদুল কবির নয়ন

থ্রিজি ছাড়িয়ে দেশে ফোরজি’র চাহিদা তৈরি হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশনের (বিটিআরসি)’র চেয়ারম্যান সুনীল কান্তি বোস।

বুধবার রাজধানীর রেডিসন হোটেলে কমনওয়েলথ টেলিকমিউনিকেশন অর্গানাইজেশনের ফোরামের শেষ দিনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

বিটিআরসি চেয়ারম্যান জানান, দেশে থ্রিজি চালু নিয়ে অনেক সমালোচনা ছিল কিন্তু তারপরও এ সেবা চালু করার পর মাত্র ৯ মাসে আমাদের মোবাইল অপারেটরগুলো ৬৪টি জেলায় এ সেবা পৌঁছে দিতে পেরেছে। দ্রুত এ সেবা সম্প্রসারণের ফলে এখন মানুষের কাছে ফোরজি’র চাহিদা তৈরি হয়েছে।

এ ব্যাপারে ব্রডব্যান্ড এলটি প্রযুক্তি ব্যবহারে সরকার চিন্তাভাবনা করছে বলেও জানান তিনি।

commonweath telcom forum
সবাদ সম্মেলনে এবারের ফোরামের বিভিন্ন প্রাপ্তির দিক তুলে ধরা হয়। ছবি- খালেদুল কবির নয়ন

সাইবার সিকিউরিটিতে অন্যান্যদেশ থেকে এ বাংলাদেশের অবস্থান অনেক ভাল উল্লেখ করে সুনীল কান্তি বলেন, এ ব্যাপারে তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় একটি ক্যাপাসিটি বিল্ড আপ কমিটি গঠন করতে যাচ্ছে।

সংবাদ সম্মেলনে কমনওয়েলথ টেলিকমিউনিকেশন অর্গানাইজেশনের সেক্রেটারি জেনারেল অধ্যাপক টিম আনউইন, বিটিআরসি’র চেয়ারম্যান সুনিল কান্তি বোস ও সচিব মো. সরওয়ার আলম উপস্থিত ছিলেন। এ সময় ৩ দিন ধরে অনুষ্ঠিত ফোরামের অগ্রগতি এবং প্রাপ্তিসমূহ তুলে ধরা হয়।

প্রসঙ্গত, গত ৮ সেপ্টেম্বর থেকে রেডিসন হোটেলে কমনওয়েলথ টেলিকমিউনিকেশন অর্গানাইজেশ ফোরাম শুরু হয়। কমনওয়েলথভুক্ত ৩২টি দেশের ১০১ জন প্রতিনিধি এ ফোরামে অংশগ্রহণ করেন।

এসএই/