দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত স্যামুয়েলস

Samuels

আইসিসির দুর্নীতি দমন আইনের চারটি নিয়ম লঙ্ঘনের দায়ে অভিযুক্ত হয়েছেন মারলন স্যামুয়েলস। মূলত তাঁর বিরুদ্ধে জুয়াড়ির কাছে থেকে উপহার ও টাকা নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগের বিরুদ্ধে সাড়া ১৪ দিন সময় পাবেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে দুইবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জয়ী এই ক্রিকেটার।

এক বিবৃতিতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে আইসিসি। কয়েক বছর হলো ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে নতুন সংযোজন হয়েছে টি-টেন লিগ। যেখানে কর্ণাটক টাস্কার্সের হয়ে খেলেছেন স্যামুয়েলস। দলটির হয়ে খেলার সময় জুয়াড়িদের কাছে থেকে উপহার সামগ্রীর সঙ্গে টাকা নিয়েছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক এই ক্রিকেটার।

যা নিয়ে আইসিসির নিকট অভিযোগ দায়ের করেছে সংযুক্ত আরব আমিরাত ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)।আচরণ বিধি ভঙের ২.৪.৩ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী জুয়াড়িদের কাছে থেকে ৭৫০ মার্কিন ডলার কিংবা তার চেয়ে বেশি অর্থ নিয়েছেন। ইসিবির এমন অভিযোগের পর তদন্ত শুরু করে আইসিসি। তবে সেখানে তদন্তকারীদের সহায়তা না করে বরং বাধা দিয়েছেন। যদিও নিজের বক্তব্য উত্থাপনের জন্য তাঁকে ১৪ দিনের সময় দিয়েছে আইসিসি।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে ৭১ টেস্ট, ২০৭ ওয়ানডে এবং ৬৭টি টি-টোয়েন্টি খেলেছেন। যেখানে সব মিলে ১১ হাজার ১৩৪ রান করেছেন। এ ছাড়া বল হাতে নিয়েছেন ১৫২ উইকেট। ২০১২ ও ২০১৬ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য ছিলেন স্যামুয়েলস। দুই ফাইনালেরই জয়ের নায়ক ছিলেন ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান। দারুণ ব্যাটিং করে দলকে জেতানোর ফলে জিতেছিলেন ম্যাচ সেরার পুরস্কারও।

অর্থসূচক/এএইচআর