আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বন্ধ
বুধবার, ২৩শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » চট্টগ্রাম ও বন্দর

আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বন্ধ

akhaoraত্রিপুরা রাজ্যের আগড়তলা ইন্টিগ্রেটেড চেকপোস্টে পণ্য পরিবহন, বন্দরে ট্রাক প্রবেশসহ অন্যান্য খরচ বাড়িয়ে দেওয়ায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে অনির্দিষ্টকালের জন্য আমদানি-রপ্তানি বন্ধ করে দিয়েছে ভারতীয় ব্যবসায়ীরা।

গতকাল বৃহস্পতিবার ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের আগড়তলার ব্যবসায়ীদের নেওয়া সিদ্ধান্ত মোতাবেক আজ শুক্রবার সকাল থেকে পণ্য আমদানি-রপ্তানি বন্ধ করে দেয়। এতে করে আখাউড়া স্থল বন্দরে আটকা পড়েছে শতাধীক পণ্যবাহী ট্রাক। লোকসানের মুখে পড়েছে বাংলাদেশের ব্যবসায়ীরা। প্রতিদিন কোটি টাকার বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনও ব্যাহত হচ্ছে। তবে যাত্রী পারপার স্বাভাবীক রয়েছে।

দু‘দেশের ব্যবসায়ীদের সূত্রে জানাগেছে ত্রিপুরা রাজ্যের আগড়তলা সীমান্তে নতুন চালু করা ইন্টিগ্রেটেড চেকপোস্টে  পণ্য পরিবহন, বন্দরে ট্রাক প্রবেশসহ অন্যান্য খরচ বাড়িয়ে দেওয়ায় তারা ব্যবসায়ীক কার্যক্রম বন্ধ রাখছেন। বাংলাদেশের ব্যবসায়ীরা জানান, ভারতে ইন্টিগ্রেটেড চেকপোস্ট চালুর পর কর ফাঁকি দেওয়া বন্ধ হয়ে যাওয়ার সেখানকার ব্যবসায়ীরা এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

এই জটিলতার কারণে আগড়তলা ও আখাউড়া স্থল বন্দর দিয়ে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রমে অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।

আখাউড়া স্থলবন্দর আমদানি-রপ্তানিকারক এসোসিয়েশনের সভাপতি মোঃ রাজীব ভূঁইয়া জানান, ভারতীয় বন্দরের খরচ বেড়ে যাওয়ায় আমদানি-রপ্তানি বন্ধ রাখার কথা বললেও এর পিছনে রয়েছে অন্য বিষয়। সত্যিকার অর্থে কর ফাঁকি দিতে পারবেন না বলেই এখন সেখানকার ব্যবসায়ীরা টালবাহানা করছে।

তিনি বলেন, আগে তারা ওজন মাপার যন্ত্র না থাকায় অনেক ফাঁকি দিতো। ইন্টিগ্রেটেড চেকপোস্ট চালুর পর এখন তা বন্ধ হয়ে গেছে। এতে করে আগড়তলার ব্যবসায়ীদের খরচ বেড়ে যাওয়ার অজুহাতে অনির্দিষ্ট কালের জন্য আমদানি-রপ্তানি বন্ধ দেয়।

তাদের এই অযৌক্তিক অজুহাতের কারণে বাংলাদেশের ব্যবসায়ীরা পড়েছে বিপাকে বলেও জানান তিনি।

এই বিভাগের আরো সংবাদ