অর্থনীতি ধুঁকছে, তবুও পুঁজিবাজারে উড়ছে টাকা

নভেল করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) আঘাতে নাকাল এশিয়ার অন্যতম শক্তিধর দেশ ভারত। নড়বড়ে এর অর্থনীতি। জিডিপির প্রবৃদ্ধি গত কয়েক দশকের মধ্যে সবচেয়ে কম। চলতি বছরে দেশটির অর্থনীতি ১০ দশমিক ৫০ শতাংশ সংকোচিত হবে বলে আশংকা করা হচ্ছে। কয়েক বছর ধরেই দেশটিতে বেকারত্বের হার উর্ধমুখী। করোনায় তা আগের সব রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে।

কিন্তু অর্থনীতির এই নাজুক অবস্থার মধ্যে উড়ছে দেশটির পুঁজিবাজার। দিনের পর দিন বিভিন্ন কোম্পানির উৎপাদন ও সেবা বন্ধ ছিল। কমে গিয়েছে কোম্পানিগুলোর বিক্রি। সর্বশেষ প্রান্তিকে অনেক প্রতি প্রতিষ্ঠানকে দেখতে হয়েছে লোকসানের মুখ। এরপরও ধেই ধেই করে বেড়েছে পুঁজিবাজারের সূচক।

গত ফেব্রুয়ারি মাসে ভারতে করোনার সংক্রমণ একটু একটু করে বাড়তে থাকলে দেশব্যাপী আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। আর এই আতঙ্কের প্রভাবে নামতে থাকে দেশটির পুঁজিবাজারের সূচক। গত ২৩ মার্চ বোম্বে স্টক এক্সচেঞ্জের প্রধান সূচক বিএসই সেনসেক্স ২৫ হাজার ৯৮১ পয়েন্টে নেমে আসে। কিন্তু এর পর সূচক ইউটার্ন নিয়ে উর্ধমুখী হতে থাকে। আজ এই সূচক ৬৪৬ দশমিক ৪০ পয়েন্ট (১.৬৯%) বেড়ে ৩৮ হাজার ৮৪০ পয়েন্ট উন্নীত হয়। গত সাড়ে ৪ মাসে সূচক বেড়েছে ১২ হাজার ৮৫৯ পয়েন্ট বা ৪৯ দশমিক ৫ শতাংশ।

পুঁজিবাজারের এই আচরণে দেশটির কেন্দ্রীয় ব্যাংক রিজার্ভ ব্যাংক অব ইন্ডিয়া এর গভর্নর বেশ উদ্বিগ্ন। তিনি কোনোভাবেই হিসাব মিলাতে পারছেন না। অর্থনীতির খারাপ অবস্থার মধ্যে পুঁজিবাজার এমন চাঙ্গা কেন, এই বাজারে কীভাবে এত টাকা উড়ছে সে প্রশ্ন তার। এ নিয়ে একটি রিপোর্ট প্রকাশ করেছে ভারতের প্রভাবশালী দৈনিক আনন্দবাজার।

আনন্দবাজার লিখেছে,একদিকে হাহাকার আর অন্যদিকে নগদের ছড়াছড়ি। একদিকে শেয়ার সূচক নীচে নামবে না বলছে, আর অন্যদিকে চাকরির বাজারে ভিক্ষাপাত্র নিয়ে ঘুরছে প্রার্থীর দল। রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গভর্নর শক্তিকান্ত দাসও শেয়ার বাজারের এই চড়া সূচক নিয়ে অস্বস্তি প্রকাশ করেছেন সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে সাক্ষাৎকারে। আর এই সংঘাত যেমন অর্থনীতির ভিত নিয়ে প্রশ্ন তুলে দিয়েছে, তেমনই বাজারের ঘুরে দাঁড়ানোর ক্ষমতা নিয়েও সংশয়ের জায়গা তৈরি করে দিয়েছে।

সমস্যাটা এখানেই। বাজারে নগদ জোগান বাড়ছে কিন্তু তা কুক্ষিগত হয়ে থাকছে কয়েকজনের হাতে। আর তা থাকছে এমন কিছু মানুষের হাতে যাদের হাতের নগদ সঞ্চয় বাজারের চাহিদা না বাড়িয়ে, দৌড়চ্ছে সোনা আর শেয়ার বাজারের দিকে। সরকার যে তা জানে না তা নয়। শক্তিকান্তবাবু এই পরিস্থিতি নিয়ে তাঁর মন্তব্যে বলেছেন, “বাজারে এত নগদের জোগান,… তাই শেয়ার বাজারের সূচকও উপরের দিকেই নড়াচড়া করছে। এর সঙ্গে বাজারের বাস্তবের কোনও মিল নেই।… সূচকের সঙ্গে বাজারের বাস্তবের তালমিল হবেই। তবে তা কবে তা আমি বলতে পারব না।”