রমজানে টিসিবি পণ্য আমদানির দরপত্র আগামি পাঁচ দিনের মধ্যে
রবিবার, ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » পণ্যবাজার

রমজানে টিসিবি পণ্য আমদানির দরপত্র আগামি পাঁচ দিনের মধ্যে

tcbরমজান উপলক্ষে এবার একটু আগেভাগেই তেল, ছোলা ও খেজুর আমদানির কার্যক্রম হাতে নিয়েছে ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)। টিসিবি সূত্র জানিয়েছে, প্রাথমিকভাবে ৩ হাজার মেট্রিক টন তেল, দেড় হাজার মেট্রিক টন ছোলা ও ১৫০ মেট্রিক টন খেজুর আমদানির কথা ভাবছে সংস্থাটি।

 

আর এর জন্য টিসিবির পক্ষ থেকে ৩ থেকে ৫ দিনের মধ্যে আন্তর্জাতিকভাবে একটা দরপত্র আহ্বান করা হবে বলে অর্থসূচককে নিশ্চিত করেন সংস্থাটির গণসংযোগ কর্মকর্তা হুমায়ন কবির।

তিনি বলেন, প্রথম পদক্ষেপে এই তিন ধরণের পণ্য আমদানির কথা ভাবছে টিসিবি। আমরা চলতি সপ্তাহের মধ্যে একটা আন্তর্জাতিক দরপত্র আহ্বান করতে যাচ্ছি। দরপত্র আহ্বানের ২৮ দিন পরে সভায় এটা খোলা হবে। তবে কাংখিত মান ও দর না পাওয়া গেলে আবার নতুন করে দরপত্র আহ্বান করা হবে বলে জানান তিনি।

আবার পণ্যের কাংখিত মান ও দর পাওয়া গেলে তার পরবর্তী ১২০ দিনের মধ্যেই কার্যক্রম শুরু করা যাবে বলেও জানান তিনি। এ ক্ষেত্রে রমজান উপলক্ষ্যে আর কি কি পণ্য আমদানি করা হবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, প্রাথমিকভাবে এই তিন পণ্য আমদানির সিদ্ধান্ত হয়েছে। অন্যান্য পণ্যের ক্ষেত্রে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি বলে জানান তিনি।

রমজান মাসে কিছু নিত্যপণ্যের দর সাধারণ মানুষের ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে রাখতে প্রতিবছর খোলা বাজারে পণ্য বিক্রি কার্যক্রম পরিচালনা করে টিসিবি। টিসিবির নিজস্ব ৪টি বিক্রয় ক্রেন্দ্রসহ রাজধানীর প্রায় ৩৫টি স্থানে ট্রাকে করে এই বিক্রি কার্যক্রম পরিচালিত হয়ে থাকে। তাছাড়া বিভাগীয় ও জেলা শহরগুলোতেও টিসিবির খোলা বাজারে পণ্য বিক্রি কার্যক্রম পরিচালিত হয়ে থাকে।

এদিকে গত অর্থবছরে রমজান ও বাকী সময়ের জন্য দ্রব্যমূল্য স্থিতিশীল রাখতে মন্ত্রণালয় ৫০ হাজার টন চিনি, ১৩ হাজার টন সয়াবিন তেল, ৮ হাজার টন পাম অলিন, ১০ হাজার টন মসুর ডাল এবং ২ হাজার টন ছোলা সংগ্রহের নির্দেশ দেয়।

তবে শুধু রমজান মাসকে সামনে রেখে ১৫ হাজার টন চিনি, ১০ হাজার টন ভোজ্যতেল, ১০ হাজার টন মসুর ডাল এবং ২ হাজার টন ছোলা মজুতের নির্দেশনা দেওয়া হয়। সেক্ষেত্রে এবার একটু আগেভাগেই টিসিবি তেল, ছোলা ও খেজুর আমদানির কার্যক্রম হাতে নিল।

এই বিভাগের আরো সংবাদ