কুয়েতে ফ্ল্যাটে মিলল বাংলাদেশি মা-মেয়ের রক্তাক্ত লাশ

প্রতীকী ছবি

কুয়েতে বাংলাদেশি এক নারী (৫৬) ও তার মেয়ের (৩১) মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। দেশটির জিলিপ অঞ্চলে একটি বাড়ি থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মরদেহে রক্তের দাগ পাওয়া গেছে। পুলিশের ধারণা পরিকল্পিতভাবে তাদের হত্যা করা হয়েছে।

প্রতীকী ছবি

শুক্রবার (২৮ আগস্ট) বাংলাদেশি অধ্যুষিত জিলিব আল সুয়েখ এলাকার একটি বহুতল ভবনের নিচতলা থেকে মরদেহ দু’টি উদ্ধার করা হয়। খবর আরব টাইমসের।

স্থানীয় পুলিশ বিভাগ জানায়, যে ফ্ল্যাট থেকে মরদেহ উদ্ধার হয়েছে সেটিতে কেবল ওই মা ও মেয়ে থাকতেন। মরদেহ দেখে ধারণা করা হচ্ছে, তাদের পরিকল্পিতভাবে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। মরদেহের ময়নাতদন্তের রিপোর্ট এখনও পাওয়া যায়নি। এ ঘটনায় একটি মামলা হয়েছে।

কুয়েতে বাংলাদেশের ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রদূত মোহাম্মাদ আনিসুজ্জামান জানান, ওই নারীর নাম মমতা এবং তার মেয়ের নাম স্বর্ণলতা। বাংলাদেশে তাদের বাড়ি ঢাকা জেলার ধামরাইয়ে।

অর্থসূচক/কেএসআর